বাড়ি > ভাগ্যলিপি > কোন ফুলে কোন বর দান করেন মহাদেব, জানুন
নীলকমল, কমল, শমী ফুল ইত্যাদি যে সমস্ত ফুল বিষ্ণুর প্রিয়, সে সবই শিব পুজোয় অর্পণ করা যায়।
নীলকমল, কমল, শমী ফুল ইত্যাদি যে সমস্ত ফুল বিষ্ণুর প্রিয়, সে সবই শিব পুজোয় অর্পণ করা যায়।

কোন ফুলে কোন বর দান করেন মহাদেব, জানুন

  • শিবকে শ্রাবণ মাসে ফুল অর্পন করারও বিশেষ গুরুত্ব রয়েছে। বেল পাতা ও ধুতুরা শিবের প্রিয়। বেলপাতা অর্পণ করলেই শিব পুজো সম্পূর্ণ ও সফল হয়। কেতকী ও কেওড়া ফুল শিব আরাধনায় নিষিদ্ধ।

শিবকে শ্রাবণ মাসে ফুল অর্পন করারও বিশেষ গুরুত্ব রয়েছে। বেল পাতা ও ধুতুরা শিবের প্রিয়। বেলপাতা অর্পণ করলেই শিব পুজো সম্পূর্ণ ও সফল হয়। এছাড়া, অগস্ত্য, গোলাপ, মৌলসিরী, শঙ্খপুষ্পী, নাগচম্পা, নাগকেসর, জয়ন্তী, বেল, জবা, কনের, বন্ধুক, নির্গুণ্ডী, হরশৃঙ্গার, আকন্দ, মন্দার, দ্রোণপুষ্প, নীলকমল, কমল, শমী ফুল ইত্যাদি যে সমস্ত ফুল বিষ্ণুর প্রিয়, সে সবই শিব পুজোয় অর্পণ করা যায়। তবে কেতকী ও কেওড়া ফুল শিব আরাধনায় নিষিদ্ধ। শুধু ভাদ্রপদমাসেই চাঁপা দিয়ে শিব পুজো করা হয়।

শিব সহস্ত্রনাম বা শিব অষ্টোত্তরশতনামের এক একটি নাম উচ্চারণ করে শিবকে পুষ্প বা বেলপাতা অর্পণ করা হয়। মনস্কামনা পুরো করার জন্য এক লক্ষ পুষ্প দিয়ে শিব পুজোর বিধান রয়েছে। তবে বর্তমানে ১০০৮ বা ১০৮টি পুষ্প দিয়ে পুজো করা যেতে পারে।

এখানে জানুন, কোন পুষ্প অর্পণ করলে, কোন মনস্কামনা পুরো হয়—

১. ভাদ্রপদমাসে কদম্ব ও চাঁপা দিয়ে শিবপুজো করলে সমস্ত ইচ্ছা পুরো হয়।

২. শিবকে বেল ফুল অর্পণ করলে সুশীল ও সুন্দর স্ত্রী পাওয়া যায়।

৩. মুক্তির কামনা থাকলে কুশা দিয়ে শিব পুজো করা উচিত। 

৪. পুত্রের ইচ্ছা থাকলে, লাল ধুতুরা দিয়ে শিব আরাধনা করা উচিত। 

৫. যশ প্রাপ্তির জন্য অগস্ত্য ফুল অর্পণ করুন।

বেল ফুল দিয়ে শিব পুজো করলে সুশীল ও সুন্দর স্ত্রী পাওয়া যায়।
বেল ফুল দিয়ে শিব পুজো করলে সুশীল ও সুন্দর স্ত্রী পাওয়া যায়।

৬. তুলসিপাতা ও মঞ্জরী দিয়ে শিব আরাধনা করলে ভোগ ও মোক্ষ দুই-ই লাভ হয়। 

৭. লাল ও সাদা আকন্দ, অপামার্গ ও শ্বেত কমলের ফুলে মহাদেব প্রসন্ন হয়েও ভোগ ও মোক্ষ দান করে থাকেন।

৮. কাম-ক্রোধ নাশের জন্য জবা ফুল দিয়ে শিব পুজো করা উচিত।

৯. রোগ নাশের জন্য কনের ফুল অর্পণ করা উচিত।

১০. আবার বন্ধুক ফুল দিয়ে পুজো করলে আভুষণ প্রাপ্তি ঘটে।

১১. চামেলির ফুল দিয়ে মহাদেবের আরাধনা করলে ব্যক্তির বাহন ক্রয়ের স্বপ্ন পুরো হয়। 

১২. তিসির ফুল দিয়ে যিনি শিব পুজো করেন, তিনি বিষ্ণুরও প্রিয় হয়ে যান।

১৩. শমী পাতা দিয়ে পুজো করলে ব্যক্তি নানান প্রকারের সুখ ও মোক্ষ লাভ করতে পারে।

১৪. জুই ফুল দিয়ে পুজো করলে বাড়িতে কখনো অন্নাভাব থাকে না।

১৫. সুন্দর নতুন বস্ত্র ও সম্পত্তির কামনা পূর্তির জন্য কনের ফুল দিয়ে শিব পুজো করা উচিত।

শ্বেত কমলের ফুলে মহাদেব প্রসন্ন হয়ে ভোগ ও মোক্ষ দান করে থাকেন।
শ্বেত কমলের ফুলে মহাদেব প্রসন্ন হয়ে ভোগ ও মোক্ষ দান করে থাকেন।

১৬. নির্গুণ্ডী ফুল দিয়ে শিব পুজো করলে মন পবিত্র ও নির্মল হয়ে যায়।

১৭. বেল পাতা দিয়ে পুজো করলে শিব সমস্ত মনস্কামনা পূ্র্ণ করেন।

১৮. হরসিঙ্গার ফুল দিয়ে পুজো করলে সুখ-সম্পত্তির বৃদ্ধি হয়।

১৯. ঋতু অনুযায়ী ফুল দিয়ে শিবপুজো করলে সংসারের আবাগমন থেকে ব্যক্তি মুক্তি পায়। 

২০. সরষে ফুল দিয়ে শিব আরাধনার ফলে শত্রুনাশ সম্ভব। 

২১. দীর্ঘ আয়ুর ইচ্ছা থাকলে, ১ লক্ষ দূর্বা দিয়ে শিবপুজো করা উচিত।

উল্লেখ্য, পদ্ম, বেলপাতা, শঙ্খপুষ্পী দিয়ে শিব আরাধনা করলে লক্ষ্মী প্রাপ্তি ঘটে। মহাদেবের প্রিয় ফুলের সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত একটি পৌরাণিক গল্প থেকে জানা যায় যে, দেবতাদের কষ্ট দূর করার জন্য বিষ্ণু প্রতিদিন শিব সহস্ত্রনাম পাঠ করে শিবকে এক সহস্র পদ্ম অর্পণ করতেন। একদা শিব তাঁর ভক্তির পরীক্ষা নেওয়ার জন্য একটি পদ্ম লুকিয়ে দেন। একটি পদ্ম কম হওয়ায় বিষ্ণু নিজের একটি পদ্মনেত্র মহাদেবের চরণে অর্পণ করেন। 

বন্ধ করুন