বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‌সরকারি হাসপাতালের ফ্রিজ থেকে 'চুরি' কোভ্যাক্সিনের ১৬ ভায়াল, তদন্তে পুলিশ
‌সরকারি হাসপাতালের ফ্রিজ থেকে 'চুরি' কোভ্যাক্সিনের ১৬ ভায়াল, তদন্তে পুলিশ। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
‌সরকারি হাসপাতালের ফ্রিজ থেকে 'চুরি' কোভ্যাক্সিনের ১৬ ভায়াল, তদন্তে পুলিশ। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

‌সরকারি হাসপাতালের ফ্রিজ থেকে 'চুরি' কোভ্যাক্সিনের ১৬ ভায়াল, তদন্তে পুলিশ

রেফ্রিজারেটর থেকে টিকার ভায়াল বের করতে গিয়ে বিষয়টি নজরে আসে হাসপাতালের এক কর্মীর।

টিকার আকালের মধ্যেই এবার রাজ্যের সরকারি হাসপাতালের রেফ্রিজারেটর থেকে 'উধাও' হয়ে গেল ১৬টি ভায়াল। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্তে নেমেছে পুলিশ।ঘটনাটি ঘটেছে শালবনি সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালের।

সেখানকার রেফ্রিজারেটর থেকে উধাও হয়ে গিয়েছে কোভ্যাক্সিনের ১৬টি ভায়াল। রেফ্রিজারেটর থেকে টিকার ভায়াল বের করতে গিয়ে বিষয়টি নজরে আসে হাসপাতালের এক কর্মীর। তিনি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের নজরে আনেন বিষয়টি। তারপর হাসপাতালের আধিকারিকরা গিয়ে দেখেন, সেখান থেকে উধাও হয়ে গিয়েছে ভ্যাকসিনের ১৬ টি ভায়াল। যা নিয়ে তোলপাড় শুরু হয়েছে হাসপাতালজুড়ে। 

যদিও ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক নবকুমার দাস এখনই এই বিষয়টিকে চুরি বলে মানতে নারাজ। তাঁর যুক্তি, আগে সব জায়গায় খুঁজে দেখা হোক। তারপর স্টকের সঙ্গে রেফ্রিজারেটরে রাখা ভায়ালের সংখ্যা মিলছে কিনা সেটাও দেখা প্রয়োজন।

অবশ্য হাসপাতালের তরফে শালবনি থানায় এ বিষয়ে অভিযোগ দায়ের করা হয়। সেই মতো বুধবার হাসপাতালে টিকা সংরক্ষণের স্থানটি খতিয়ে দেখেন তদন্তকারী আধিকারিকরা। রেফ্রিজারেটরের আশেপাশের জায়গায় সিসিটিভি না থাকায়, আতান্তরে পড়েছে পুলিশ। কে বা কারা ভ্যাকসিন 'চুরির' সঙ্গে জড়িত তা জানা যাচ্ছে না। তবে ভায়াল কীভাবে উধাও হল, সেই রহস্যের কিনারা করতে হাসপাতালের কর্মীদের সঙ্গে কথা বলছে পুলিশ।

বন্ধ করুন