বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > শিশুর মায়ের শ্লীলতাহানি বেসরকারি নার্সিংহোমে, অভিযুক্ত কর্মীর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ
গৃহবধূর শ্লীলতাহানি বেসরকারি নার্সিংহোমে

শিশুর মায়ের শ্লীলতাহানি বেসরকারি নার্সিংহোমে, অভিযুক্ত কর্মীর বিরুদ্ধে বিক্ষোভ

  • তাঁকে সাহায্য করার অছিলায় শ্লীলতাহানি করেছে নাসিংহোমের এক কর্মী।

শিশুর মায়ের শ্লীলতাহানির ঘটনায় উত্তপ্ত হয়ে উঠল রায়গঞ্জের বেসরকারি নাসিংহোম চত্ত্বর। এই কাজে জড়িত নাসিংহোমের কর্মী বলে অভিযোগ উঠেছে। এখানে চিকিৎসাধীন ছিলেন এক শিশুর মা। অভিযোগ, তাঁকে সাহায্য করার অছিলায় শ্লীলতাহানি করেছে নাসিংহোমের এক কর্মী। এমনকী এই বিষয়ে অভিযোগ জানাতে গেলে নাসিংহোম কর্তৃপক্ষ দুর্ব্যবহার করেন নির্যাতিতা পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে। ঘটনাটি ঘটেছে রায়গঞ্জে।

স্থানীয় সূত্রে খবর, রায়গঞ্জ ব্লকের মাড়াইকুড়া গ্রাম পঞ্চায়েতের বাসিন্দা ওই গৃহবধূ কয়েকদিন আগে তাঁর ছোট্ট শিশু সন্তানকে নিয়ে রায়গঞ্জ হাসপাতালের পাশেই একটি বেসরকারি নার্সিংহোমে ভর্তি হন। বৃহস্পতিবার রাতে নার্সিংহোমের এক কর্মী কিছু না জানিয়ে ওই ঘরে ঢুকে পড়ে। তারপর সেখানে অশালীন আচরণ করতে থাকে। বাধ্য হয়ে চিৎকার করলে তখন ওই কর্মী পালিয়ে যায়।

কিন্তু ততক্ষণে অনেক অশালীন আচরণ করে ফেলে ওই ব্যক্তি বলে নির্যাতিতা গৃহবধূর অভিযোগ। এই ঘটনা নিয়ে তখনই নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষের কাছে নালিশ জানাতে যান তিনি। ফোন করে ডেকে আনেন পরিবারের সদস্যদের। উলটে তাঁদের সঙ্গেই দুর্ব্যবহার করে নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ। এমনকী এই অভিযোগে উড়িয়ে দেয় নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে তীব্র উত্তেজনা ছড়ায় রায়গঞ্জে। ঘটনাস্থলে পুলিশ পৌঁছলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

তবে এই ঘটনায় নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষকে ছেড়ে দিতে নারাজ পরিবারের লোকজন। তাঁরা নার্সিংহোমের সামনে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ দেখান। পরিবারের সদস্যদের দাবি, অভিযুক্ত কর্মীকে অবিলম্বে শাস্তি দেওয়া এবং তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হোক। এই পরিস্থিতিতে রায়গঞ্জ থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে উত্তপ্ত পরিস্থিতি সামাল দেয়।

বন্ধ করুন