বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > কী কষ্ট! পথ কুকুরের মুখে আটকে কৌটো, কিছু খেতেও পারছে না, পাশে বাসিন্দারা
পথ কুকুরের মুখে আটকে রয়েছে প্লাস্টিকের কৌটো। (সংগৃহীত)

কী কষ্ট! পথ কুকুরের মুখে আটকে কৌটো, কিছু খেতেও পারছে না, পাশে বাসিন্দারা

  • পথ কুকুরটিকে বাঁচানোর চেষ্টা করছেন বাসিন্দারা।

পথ কুকুরের মুখে আটকে রয়েছে প্লাস্টিকের কৌটো। আর তানিয়ে ছুটে বেড়াচ্ছে অসহায় প্রাণীটি। প্রায় ৫দিন ধরে এভাবেই ভয়ঙ্কর কষ্টের মধ্যে রয়েছে পথকুকুরটি। পশ্চিমমেদিনীপুর জেলার চন্দ্রকোণা ২ নম্বর ব্লকের কুঁয়াপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বালা গ্রামের এই ঘটনাকে ঘিরে শোরগোল পড়েছে এলাকায়। স্থানীয় পঞ্চায়েত প্রধান শংকর ঘোষের কাছেও এব্যাপারে খবর যায়। তাঁরাও বিভিন্ন জায়গায় কুকুরটিকে খোঁজাখুজি করেন। স্থানীয় সূত্রে খবর, শেষ পর্যন্ত কুকুরটার মুখ থেকে প্লাস্টিকের কৌটোটা বের করার চেষ্টাও হয়েছে। কিন্তু সেটিকে টেনে বের করা যায়নি।তবে পঞ্চায়েত কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে কুকুরটির প্রতি নজর রয়েছে। প্লাস্টিকের কৌটোটিকে বের করার চেষ্টা করা হচ্ছে।

এদিকে বাসিন্দাদের দাবি, গত পাঁচদিন ধরে দানাপানি মুখে তুলতে পারেনি সারমেয়টি। মুখেই আটকে রয়েছে প্লাস্টিকের কৌটো। জলও খেতে পারছে না। এদিকে খেতে না পেয়ে আরও হাড়জিড়জিড়ে হয়ে গিয়েছে পথকুকুরটি। কোনওভাবে তার মুখ থেকে প্লাস্টিকের কৌটোটি বের করাই এখন বাসিন্দাদের কাছে বড় চ্যালেঞ্জ। তারা অবিরাম চেষ্টাও চালিয়ে যাচ্ছেন। আসলে পথ কুকুরের উপর নানাভাবে অত্যাচারের ঘটনা সামনে আসে মাঝেমধ্যেই। এমনকী সরকারি হাসপাতালে সারমেয় শাবককে মেরে ফেলার অভিযোগও সামনে এসেছে অতীতে। তবে চন্দ্রকোণায় ভিন্ন ছবি। মুখে প্লাস্টিকের জার আটকে থাকা অসহায় কুকুরটিকে স্বস্তি দেওয়ার জন্য কোমর বেঁধে নেমেছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। সবরকম চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন তাঁরা। 

 

বন্ধ করুন