বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > গায়ে পেট্রোল ঢেলে তৃণমূল পঞ্চায়েত প্রধানকে মারার চেষ্টা যুবকের
আহত পঞ্চায়েত প্রধান
আহত পঞ্চায়েত প্রধান

গায়ে পেট্রোল ঢেলে তৃণমূল পঞ্চায়েত প্রধানকে মারার চেষ্টা যুবকের

  • কিছুদিন আগে পঞ্চায়েত প্রধানের একটি সিদ্ধান্ত নিয়ে ক্ষোভ ছিল মোহনের মনে। সেই ক্ষোভ সে অনেকদিন চেপে রেখেছিল।

সালিশি সভাকে কেন্দ্র করে পুরনো আক্রোশের জের। গায়ে পেট্রোল ঢেলে তৃণমূলের পঞ্চায়েত প্রধানকে মেরে ফেলার চেষ্টা এক যুবকের। কোনওক্রমে প্রাণে বেঁচে যান ওই পঞ্চায়েত প্রধান।

চাঞ্চল্যকর এই ঘটনাটি ঘটেছে খেজুরির টিকাশী গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায়। শুক্রবার নিজের মোটরসাইকেলে করে বাড়ি ফিরছিলেন পঞ্চায়েত প্রধান গৌড়াঙ্গ সাউর। তখন মাঝপথে তাঁর দাঁড় করাতে বলে মোহন মাইতি নামে এক যুবক। মোহন গৌড়াঙ্গের পূর্ব পরিচিত। মোহনকে বাইকে বসিয়ে গৌড়াঙ্গ বাইক নিয়ে কিছুটা দূর এগোন। এরপর আচমকাই ছোরা বের করে গৌড়াঙ্গকে বাইক থেকে নামতে বলেন মোহন। 

 

 

ভারী বস্তু দিয়ে গৌড়াঙ্গের মাথায় আঘাত করা হয়। গৌড়াঙ্গ মাটিতে পড়ে তাঁর গায়ে পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করা হয়। সঙ্গে সঙ্গে চিৎকার করতে শুরু করেন তিনি। আশেপাশের গ্রামবাসীরা বেরিয়ে এসে গৌড়াঙ্গকে উদ্ধার করেন। ঘটনাস্থলে যান স্থানীয় তৃণমূল নেতারা। প্রথমে পঞ্চায়েত প্রধানকে হেঁড়িয়া ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করানো হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হলে তাঁকে তমলুক জেলা হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। সেখানেই এখন তিনি চিকিৎসাধীন।

 

 

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, কিছুদিন আগে পঞ্চায়েত প্রধানের একটি সিদ্ধান্ত নিয়ে ক্ষোভ ছিল মোহনের মনে। সেই ক্ষোভ সে অনেকদিন চেপে রেখেছিল। এদিন যখন মোহনকে ধরা হয়, তখন চিৎকার করে গৌড়াঙ্গকে বলতে শোনা যায়, ‘‌আমি পঞ্চায়েত প্রধানকে জ্যান্ত পুড়িয়ে মারতে চাই।’‌ ইতিমধ্যে তৃণমূলের তরফে খেজুরি থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। তৃণমূলের অভিযোগ, বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীরাই এই হামলার পিছনে রয়েছে। অন্যদিকে বিজেপি অবশ্য তাদের বিরুদ্ধে ওঠা যাবতীয় অভিযোগ অস্বীকার করেছে। তাঁদের মতে, সাধারণ ঘটনাকে রাজনীতির রঙ দিতে চাইছে তৃণমূল।

বন্ধ করুন