বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘‌বহরমপুর তৃণমূলের জেতা সময়ের অপেক্ষা’‌, অধীরের চ্যালেঞ্জ নিয়ে পাল্টা অভিষেক

‘‌বহরমপুর তৃণমূলের জেতা সময়ের অপেক্ষা’‌, অধীরের চ্যালেঞ্জ নিয়ে পাল্টা অভিষেক

তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

অধীর চৌধুরীর পাল্টা চ্যালেঞ্জ ছিল, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর বিরুদ্ধে প্রার্থী হয়ে জিততে পারলে তিনি রাজনীতি ছেড়ে দেবেন। এবার সেই চ্যালেঞ্জ কার্যত গ্রহণ করলেন তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। মুর্শিদাবাদ ছাড়ার আগে অধীরের চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করলেন।

যুযুধান দুই রাজনৈতিক ব্যক্তি একে অপরকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে ছিলেন। অভিষেকের চ্যালেঞ্জ ছিল, বাংলার মানুষের প্রাপ্য টাকার জন্য কংগ্রেস এবং অধীররঞ্জন চৌধুরী একটিও চিঠি লিখে থাকলে তিনি রাজনীতি ছেড়ে দেবেন। আবার অধীর চৌধুরীর পাল্টা চ্যালেঞ্জ ছিল, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর বিরুদ্ধে প্রার্থী হয়ে জিততে পারলে তিনি রাজনীতি ছেড়ে দেবেন। এবার সেই চ্যালেঞ্জ কার্যত গ্রহণ করলেন তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।

ঠিক কী বলেছেন অভিষেক?‌ মুর্শিদাবাদ ছাড়ার আগে তিনি অধীরের চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করলেন। আর এই জেলা ছাড়ার আগে কড়া দাওয়াই দিয়ে গেলেন। তাঁর কথায়, ‘বহরমপুর তৃণমূলের জেতা শুধুমাত্র সময়ের অপেক্ষা। আমি বহরমপুরের উন্নয়নের দায়িত্ব নিজের কাঁধে তুলে নিলাম।’‌ অর্থাৎ আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে বহরমপুর থেকে অধীররঞ্জন চৌধুরীকে হারাতে জোরদার কাজ শুরু হবে। এখানের যেটুকু উন্নয়নের কাজ বাকি আছে তা অবিলম্বে শেষ করা হবে। এমনকী এই জেলার দায়িত্ব অভিষেক নিজের কাঁধে তুলে নিলেন।

অধীরের চ্যালেঞ্জ ঠিক কী ছিল?‌ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় তাঁর গড় বহরমপুর দখলের কথা বলার পর অধীর চৌধুরী পাল্টা চ্যালেঞ্জ ছুড়ে বলেছিলেন, ‘তৃণমূলের কোনও ছোটখাটো নেতার বিরুদ্ধে নয়। আমার ইচ্ছা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা। অথবা অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে পাঠাতে পারেন। বহরমপুর থেকে ভোটে দাঁড়িয়ে আমাকে হারিয়ে দেখাতে পারলে রাজনীতি করা ছেড়ে দেব।’‌ তারপরই এই লোকসভা কেন্দ্রের দায়িত্ব নিজের কাঁধে নিয়ে নিলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। সুতরাং লোকসভা নির্বাচনে এই কেন্দ্র এখনই নজরকাড়া হয়ে উঠল বলে মনে করা হচ্ছে।

আর কী বলেছেন অভিষেক?‌ মুর্শিদাবাদ নিয়ে আত্মবিশ্বাসী অভিষেক নবজোয়ার যাত্রায় তিন দিন মুর্শিদাবাদে জনসংযোগ সারলেন। আর এই সফর উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘আমি মুর্শিদাবাদের আপামর জনগণের কাছে আজীবন ঋণী হয়ে থাকব। আপনাদের নিঃস্বার্থ ভালবাসা এবং সমর্থন পেলাম তাতে আমি মুগ্ধ। মুর্শিদাবাদের মানুষের আশীর্বাদকে শিরে ধারণ করে, আমি আগামী দিনের যাত্রার জন্য প্রস্তুত। যতই প্রতিকূলতা আসুক, আমরা তৃণমূল স্তরে গণতন্ত্রকে শক্তিশালী করার যে ব্রত নিয়েছি তা বাস্তবায়িত করবই। এই জেলায় এবার তিনটি লোকসভা আসনই তৃণমূল জিতবে। অধীর চৌধুরীর পরাজয়ও সময়ের অপেক্ষা।’‌

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

বাংলার মুখ খবর
বন্ধ করুন

Latest News

ফের বৃষ্টি শুরু শনিবার থেকে, রবিবার বাংলার ১১ জেলায় বর্ষণ, কোথায় কোথায় হবে? ‘আমার ডিভোর্স হয়ে গেছে’, শাক্যর সঙ্গে কেন ভাঙল বিয়ে? প্রথমবার জবাব শোলাঙ্কির ভারতীয় নৌসেনার মহড়া শেষ হতেই মলদ্বীপ ছাড়ল চিনের ‘গুপ্তচর জাহাজ’- রিপোর্ট BPL 2024: ফাইনালের আগে বাংলাদেশ প্রিমিয়র লিগে সব থেকে বেশি রান তামিমের, সেরা পাঁচের ধারে-কাছে নেই শাকিব হাড্ডাহাড্ডি লড়াই, ৫৫ রানে পিছিয়ে আয়ারল্যান্ড, ফিরল ১০০ বছর আগের স্মৃতি নিয়োগ দুর্নীতির 'সেতু' ছিলেন প্রসন্ন, ২০০টি অ্যাকাউন্ট, লেনদেন জানলে ঘুম উড়বে রাজ্যপালের আতিথেয়তায় রাজভবনে রাত কাটাবেন মোদী, আর কোথায় কর্মসূচি? ISRO-র অ্যাডে 'চিনের ছবি বসাল DMK', মোদী তোপ দাগতেই বলল ‘সত্যিটা স্বীকার করুন’ ‘জীবনের সেরা কোলাব..’,চুপিচুপি বিয়ে সারলেন ‘রাসোরে মে কৌন থা’ খ্যাত যশরাজ মুখাটে সিঙ্গুর,নন্দীগ্রামের সঙ্গে তুলনা চলে না-নাম না করে কি সন্দেশখালিই ইঙ্গিত দিদির?

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.