বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > জন বারলার বিরুদ্ধে সরকারি জমি দখলের অভিযোগ, রিপোর্ট চাইল জেলা প্রশাসন
কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা আলিপুরদুয়ারের বিজেপি সাংসদ জন বারলা (ফাইল ছবি)
কেন্দ্রীয় মন্ত্রী তথা আলিপুরদুয়ারের বিজেপি সাংসদ জন বারলা (ফাইল ছবি)

জন বারলার বিরুদ্ধে সরকারি জমি দখলের অভিযোগ, রিপোর্ট চাইল জেলা প্রশাসন

  • জমির স্ট্য়াটাস রিপোর্ট চেয়ে পাঠিয়েছে জেলা প্রশাসন

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জন বারলার বিরুদ্ধে ডুয়ার্সে সরকারি জমি দখলের অভিযোগ তুলে সরব হয়েছেন তৃণমূল নেতৃত্ব। এনিয়ে জেলা প্রশাসনের কাছে নালিশও জানিয়েছেন তৃণমূলের জেলা সভাপতি কৃষ্ণকুমার কল্যাণী। এদিকে অভিযোগ পাওয়ার পরেই নড়েচড়ে বসেছে প্রশাসন। সূত্রের খবর, ইতিমধ্যেই ভূমি ও ভূমি সংস্কার দফতরকে যাবতীয় অভিযোগ খতিয়ে দেখে রিপোর্ট দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে জেলা প্রশাসন।জমির স্ট্যাটাস রিপোর্ট জমা দেওয়ার ব্যাপারে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

জেলা তৃণমূল নেতৃত্বের দাবি চামুর্চিতে সরকারি জমি দখল করে বহুতল নির্মাণ করা হচ্ছে। আর এই গোটা প্রকল্পের পেছনে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী জন বারলা রয়েছেন। এব্যাপারে জমির নথি ও ভবনের ছবিও জেলা প্রশাসনের কাছে জমা দেওয়া হয়েছে। বানারহাটের নেতৃত্বের কাছ থেকে অভিযোগ পাওয়ার পরেই এনিয়ে অগ্রসর হন জেলা তৃণমূল নেতৃত্ব। জেলা তৃণমূল নেতৃত্বের অভিযোগ ওই সরকারি জমিতে প্লট তৈরি করে ২০-২৫ লক্ষ টাকায় বিক্রি করা হচ্ছে। 

এদিকে গোটা ঘটনাকে ঘিরে রাজনৈতির চাপানউতোর চরমে উঠেছে। তবে অভিযোগ পাওয়ার পরেই বিষয়টি বেশ গুরুত্ব দিয়ে দেখছে জেলা প্রশাসন। জমিটি বর্তমানে কোন পরিস্থিতিতে রয়েছে সেটাই মূলত জানতে চাইছে প্রশাসন। এব্যাপারে ভূমি ও ভূমি সংস্কার দফতরকে তৎপর হওয়ার জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখে রিপোর্ট দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে জেলা প্রশাসন। প্রসঙ্গত উত্তরবঙ্গকে পৃথক রাজ্য করার দাবিকে সামনে এনে আগেই বিতর্কে জড়িয়েছিলেন জন বারলা। এবার জমি দখলের অভিযোগকে কেন্দ্র করে নয়া বিতর্ক।

 

বন্ধ করুন