বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > আসানসোলের তৃণমূল কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে জোর করে স্কুলে ছাত্রী ভর্তি করানোর অভিযোগ
তৃণমূল কাউন্সিলর রণবীর সিং। ছবি সৌজন্যে ফেসবুক।

আসানসোলের তৃণমূল কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে জোর করে স্কুলে ছাত্রী ভর্তি করানোর অভিযোগ

  • এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন কাউন্সিলর। পাল্টা তিনি দরিদ্র পরিবারের পড়ুয়াদের ভর্তি না নেওয়ার অভিযোগ তুলেছেন স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে।

‌আসানসোলে সদ্য নির্বাচিত হওয়া কাউন্সিলর মার্চ মাসেও পড়ুয়াদের ভর্তির জন্য চাপ দিচ্ছেন স্কুল কর্তৃপক্ষকে। এমনই অভিযোগ উঠেছে আসানসোল পুরসভার সদ্য নির্বাচিত কাউন্সিলর রণবীর সিংয়ের বিরুদ্ধে। ঘটনায় কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে দক্ষিণ আসানসোল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন স্কুলের প্রধান শিক্ষিকা। যদিও এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন কাউন্সিলর। পাল্টা তিনি দরিদ্র পরিবারের পড়ুয়াদের ভর্তি না নেওয়ার অভিযোগ তুলেছেন স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে।

প্রধান-শিক্ষিকার অভিযোগ, স্কুলে ভর্তির প্রক্রিয়া এখন চলছে না তারপরেও ৪১ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর জোর করে কয়জনকে ভর্তি করাতে চাইছেন। স্কুলের পক্ষ থেকে তা সম্ভব নয় জানানোর পরেও তাদের রীতিমতো হুমকি দিচ্ছেন কাউন্সিলর। আরও অভিযোগ, আসানসোলের জি টি রোডের ধারে ওই স্কুলে শুক্রবার নিজের দলবল নিয়ে চড়াও হন কাউন্সিলর। এরপর কয়েক জন ছাত্রীকে স্কুলে ভর্তি করানোর জন্য রীতিমতো তাদের শাঁসিয়ে আসেন।

যদিও রণবীর সিংয়ের দাবি, ‘এলাকার দরিদ্র পরিবারের কিছু ছাত্রী ওই নামকরা স্কুলে পড়তে চেয়েছিল। তাই তাদের ভর্তি করানোর জন্য আমি স্কুল কর্তৃপক্ষের কাছে অনুরোধ করেছিলাম । তবে কোনওরকম হুমকি দিই নি।’

অন্যদিকে, এই অভিযোগের বিষয়টি জানতে পেরে সমালোচনায় সরব হয়েছে তৃণমূলের শিক্ষক সংগঠন। তাদের বক্তব্য, মার্চ মাসে কেউ যদি পড়ুয়াদের ভর্তির জন্য স্কুলকে চাপ দিয়ে থাকে সেটা মোটেই উচিত নয়। এই ধরনের ঘটনা ঘটে থাকলে তা খুবই নিন্দনীয়। কাউন্সিলর হুমকি না দিয়ে কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি বুঝিয়ে বলতে পারতেন।

বন্ধ করুন