বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > GTA teacher appointment scam: ‘রাজনীতি হচ্ছে’, জিটিএ শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ নিয়ে সাফাই অনীত থাপার
সাংবাদিকদের মুখোমুখি অনীত থাপা। নিজস্ব ছবি।

GTA teacher appointment scam: ‘রাজনীতি হচ্ছে’, জিটিএ শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ নিয়ে সাফাই অনীত থাপার

এনিয়ে রাজ্য সরকারকে দায়ী করে থাপা বলেন, ‘এখানে শিক্ষক নিয়োগে ইন্টারভিউয়ের ব্যবস্থা করতে পারেনি সরকার। আমি মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে এনিয়ে দাবিও তুলেছি। জিটিএ-তে স্কুল সার্ভিস কমিশন কার্যকর করার দাবি জানিয়েছি। পাহাড়ে ভলেন্টিয়ার শিক্ষক নামে একটি ব্যবস্থা শুরু হয়েছে।’

জিটিএতে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে জিটিএ-র চিফ এক্সিকিউটিভ অনীত থাপার বিরুদ্ধে। এ নিয়ে এবার মুখ খুললেন অনীত থাপা। তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগ উড়িয়ে এ নিয়ে ‘রাজনীতি হচ্ছে’ বলে অনীত থাপা দাবি করেছেন। উল্টে রাজ্য সরকারকেই কাঠগড়ায় তুলেছেন অনীত থাপা।

তিনি বলেন, ‘জিটিএর চুক্তিতে এসএসসি কার্যকর করার কথা বলা হলেও আজ পর্যন্ত তা করা হয়নি।’ এনিয়ে রাজ্য সরকারকে দায়ী করে থাপা বলেন, ‘এখানে শিক্ষক নিয়োগে ইন্টারভিউয়ের ব্যবস্থা করতে পারেনি সরকার। আমি মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে এনিয়ে দাবিও তুলেছি। জিটিএ-তে স্কুল সার্ভিস কমিশন কার্যকর করার দাবি জানিয়েছি। পাহাড়ে ভলেন্টিয়ার শিক্ষক নামে একটি ব্যবস্থা শুরু হয়েছে। কিন্তু, আমি চাই এসএসসির মাধ্যমে এখানে শিক্ষক নিয়োগ করা হোক।’ তাঁর আরও সংযোজন, ‘পাহাড়ে শিক্ষক নিয়োগের ব্যবস্থা নেই। আমি সিস্টেমের বিরুদ্ধে লড়াই করছি। এনিয়ে যে অভিযোগ উঠেছে তাতে রাজনৈতিক রঙ লেগেছে।’

চাকরিপ্রার্থীদের সংগঠন গোর্খা আনএপ্লয়েড ট্রেন্ড টিচার্স ওয়েলফেয়ার অ্যাসোসিয়েশনের পক্ষ থেকে জিটিএ’তে শিক্ষক নিয়োগে দুর্নীতির অভিযোগ তোলা হয়। এনিয়ে সিবিআই তদন্তের দাবি জানিয়ে তারা মামলা করেছে। তাদের অভিযোগ, পরিবারের সদস্য এবং দলের বহু কর্মী সমর্থককে বেআইনিভাবে শিক্ষকের চাকরি করিয়ে দিয়েছিলেন বিনয় তামাং এবং অনিত থাপা। তাদের আরও অভিযোগ, অনীত থাপা মাথাপিছু ১০ থেকে ১৫ লক্ষ টাকা নিয়ে চাকরি করিয়ে দিয়েছিলেন। সব মিলিয়ে ৫০ কোটি টাকার দুর্নীতি হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন চাকরি প্রার্থীরা।

বন্ধ করুন