বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > বাড়ি তৈরির ৫ লক্ষ টাকা বকেয়া, দাবি অর্পিতার জাঙ্গিপাড়ার বাড়ির ঠিকাদারের
অর্পিতা মুখোপাধ্যায়

বাড়ি তৈরির ৫ লক্ষ টাকা বকেয়া, দাবি অর্পিতার জাঙ্গিপাড়ার বাড়ির ঠিকাদারের

  • শ্রীকান্ত বলেন, ম্যাডাম বলেছিলেন কাজ শেষ হলেই বাকি টাকা দিয়ে দেবেন। কাজ শেষ হয়েছে প্রায় ৪ মাস হল। কিন্তু টাকা পাইনি। অর্পিতাদেবীর মামাতো ভাই কুন্তলকে গত সপ্তাহে টাকা চেয়ে ফোন করেছিলাম। আমাকে কুন্তল বিরক্ত হয়ে বলেন, টাকা চেয়ে ফোন করছেন কেন?

তাঁর ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার হয়েছে প্রায় ২২ কোটি টাকা। তাঁর নামে কলকাতা ও শহরতলিতে পাওয়া গিয়েছে অন্তত এক ডজন ফ্ল্যাটের সন্ধান। সেই অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের কাছে ৫ লক্ষ টাকা পান বলে দাবি করেছেন সাধারণ একজন ঠিকাদার। মঙ্গলবার হুগলির জাঙ্গিপাড়ায় অর্পিতাদেবীর নবনির্মিত বাড়ির সামনে দাঁড়িয়ে এমনই দাবি করলেন ওই বাড়ির ঠিকাদার শ্রীকান্ত আড়ু।

মাস চারেক আগে হুগলির জাঙ্গিপাড়ায় দিলকাশ গ্রামপঞ্চায়েতে মামাবাড়ি অর্পিতার। সেখানে মাস চারেক আগে একটি একতলা বাড়ি বানান অর্পিতা। ১৫ লক্ষ টাকায় সেই বাড়ি তৈরির বরাত নিয়েছিলেন শ্রীকান্ত। বাড়ি তৈরির সময় ১০ লক্ষ টাকা অর্পিতাকে দিয়েছিলেন শ্রীকান্ত। অভিযোগ, ৫ লক্ষ টাকা এখনো তিনি পান অর্পিতার কাছে।

শ্রীকান্ত বলেন, ম্যাডাম বলেছিলেন কাজ শেষ হলেই বাকি টাকা দিয়ে দেবেন। কাজ শেষ হয়েছে প্রায় ৪ মাস হল। কিন্তু টাকা পাইনি। অর্পিতাদেবীর মামাতো ভাই কুন্তলকে গত সপ্তাহে টাকা চেয়ে ফোন করেছিলাম। আমাকে কুন্তল বিরক্ত হয়ে বলেন, টাকা চেয়ে ফোন করছেন কেন? সময়মতো টাকা পেয়ে যাবেন। এখন আমার ৫ লক্ষ টাকার কী হবে?

ওদিকে অর্পিতার এক মামি জানিয়েছেন, নতুন তৈরি ওই বাড়িতে মাটির নীচে বাঙ্কার বানিয়েছেন অর্পিতা। তাঁকে এক রাজমিস্ত্রি সেকথা জানিয়েছেন বলে দাবি প্রৌঢ়ার। ওই বাঙ্কারেও টাকা রাখা থাকতে পারে বলে অনুমান তাঁর।

 

বন্ধ করুন