বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > পার্থর টাকায় মামাবাড়িতে মাটির নীচে বাঙ্কার বানিয়েছিলেন অর্পিতা! দাবি মামির

পার্থর টাকায় মামাবাড়িতে মাটির নীচে বাঙ্কার বানিয়েছিলেন অর্পিতা! দাবি মামির

অর্পিতা মুখোপাধ্যায়। 

পার্থবাবু যে অর্পিতার সঙ্গে তাঁদের বাড়িতে আসতেন তা স্বীকার করেছেন অর্পিতার মামিও। তিনি বলেন, আমাদের বাড়ির সামনে অর্পিতাকে ১ তলা বাড়ি করে দেন পার্থবাবু। সেই বাড়িতে মেঝের তলায় বাঙ্কার বানানো হয়েছে বলে আমাদের জানিয়েছেন রাজমিস্ত্রিরা।

শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় পার্থ চট্টোপাধ্যায় ঘনিষ্ঠ অর্পিতা মুখোপাধ্যায়কে নিয়ে উঠে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য। পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের টাকায় মামাবাড়িতে মাটির নীচে বাঙ্কার বানিয়েছিলেন অর্পিতা। মাস চারেক আগে তৈরি হয়েছিল সেই বাঙ্কার। এমনই জানিয়েছেন অর্পিতার মামি স্বপ্না চক্রবর্তী। সেই বাঙ্কারেও টাকা ও গয়না লুকানো থাকতে পারে বলে আশঙ্কা তাঁর।

হুগলির জাঙ্গিপাড়ায় পার্থ চট্টোপাধ্যায় ঘনিষ্ঠ অর্পিতার মামাবাড়ি। জাঙ্গিপাড়ার দিলাকাশ গ্রাম পঞ্চায়েতের মথুরাবাটি গ্রামে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে মাঝেমাঝেই যেতে অর্পিতা। গ্রামবাসীদের দাবি, তাঁদের সঙ্গে অত্যন্ত দুর্ব্যবহার করতেন তিনি। ক্ষমতা জাহির করে হুমকি দিতেন।

পার্থবাবু যে অর্পিতার সঙ্গে তাঁদের বাড়িতে আসতেন তা স্বীকার করেছেন অর্পিতার মামিও। তিনি বলেন, আমাদের বাড়ির সামনে অর্পিতাকে ১ তলা বাড়ি করে দেন পার্থবাবু। সেই বাড়িতে মেঝের তলায় বাঙ্কার বানানো হয়েছে বলে আমাদের জানিয়েছেন রাজমিস্ত্রিরা। তখন বিষয়টিকে এত গুরুত্ব দিইনি। এখন তো মনে হচ্ছে সেখানেও টাকা লুকানো থাকতে পারে।

গ্রামবাসীরা জানিয়েছেন, বছর কয়েক আগেও অর্পিতার মামা তপন চক্রবর্তীর নুন আনতে পান্তা ফুরায় দশা ছিল। কিন্তু রাতারাতি তারা অবস্থাপন্ন হয়ে ওঠেন। অর্পিতার সঙ্গে মন্ত্রীর যোগাযোগেই যে এই শ্রীবৃদ্ধি তা বুঝতে সমস্যা হয়নি কারও। এমনকী অর্পিতার পরিবারের একাধিক সদস্য রাতারাতি সরকারি চাকরি পেয়েছেন বলে জানিয়েছেন তারা। তাদের মধ্যে রয়েছে অর্পিতার মামাতো দাদা কুন্তল চক্রবর্তী। এমনকী অর্পিতার মামাদের ২টি বাড়ি করে দেন পার্থবাবু। তার একটি গ্রামের জমি দখল করে করা বলে অভিযোগ। আরেকটি বাড়ি মেরামত করে ঝাঁ চকচকে করে দেন তিনি।

 

বন্ধ করুন