বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Bandel: ভোগান্তির দিন শেষ, ‘মঙ্গলবার ব্যান্ডেল থেকে স্বাভাবিক হবে ট্রেন পরিষেবা’

Bandel: ভোগান্তির দিন শেষ, ‘মঙ্গলবার ব্যান্ডেল থেকে স্বাভাবিক হবে ট্রেন পরিষেবা’

মঙ্গলবার ব্যান্ডেল থেকে স্বাভাবিক হবে রেল পরিষেবা। জানিয়েছে রেল কর্তৃপক্ষ। (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্যে পিটিআই) (PTI)

৭২ ঘণ্টা ধরে চরম ভোগান্তি হয়েছে যাত্রীদের। বহু ট্রেনও বাতিল করা হয়। ব্যান্ডেলের মতো গুরুত্বপূর্ণ স্টেশনে ইলেকট্রনিক ইন্টারলকিং সিস্টেমের কাজ হচ্ছিল। তবে রেল জানিয়েছে মঙ্গলবার থেকেই স্বাভাবিক হবে পরিষেবা।

পরপর তিনদিনের ভোগান্তি। অটোর জন্য ভাড়া গুনতে গিয়ে চরম সমস্যায় পড়েন সাধারণ যাত্রীরা। এর সঙ্গেই ভিড়ে ঠাসা ট্রেন। তবে এবার ভোগান্তির শেষ। রেল কর্তৃপক্ষ জানিয়ে দিয়েছে, সোমবার দিনভর ইলেকট্রনিক ইন্টারলকিং সিস্টেম পরীক্ষা করে দেখা হয়েছে। এরপর এনিয়ে সবুজ সংকেত দিয়েছেন ইঞ্জিনিয়াররা, রেল কর্তারা। সোমবার থেকে নির্ধারিত সূচি মেনেই ট্রেন চলাচল করবে।

সোমবার পূর্ব রেলের মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক একলব্য চক্রবর্তী জানিয়েছেন, ব্যান্ডেলে থার্ড লাইন পরীক্ষার কাজ শেষ হয়েছে। অত্যাধুনিক ও বিশ্বের সর্ববৃহৎ ইলেকট্রনিক ইন্টারলকিংয়ের কাজও সম্পন্ন হয়েছে। ব্যান্ডেলে এই কাজ শেষ করার জন্য গত ৭২ ঘণ্টায় ট্রেনের সময়সূচি বদল করতে হয়েছে। পূর্ব রেলের মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক একলব্য চক্রবর্তী জানিয়েছেন,মঙ্গলবার থেকেই কোনও অসুবিধা ছাড়াই স্বাভাবিক নিয়মে ট্রেন চলবে।

কতটা অত্যাধুনিক এই ব্যবস্থা? রেল সূত্রে খবর, ইলেকট্রনিক ইন্টারলকিং কেবিন তৈরি হয়েছে। সেখানে থাকবেন প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত কর্মীরা। সেখান থেকে ১,০০২টি রুটকে তাঁরা নিয়ন্ত্রণ করতে পারবেন। কার্যত একেবারে কর্মযজ্ঞ। এই কেবিনে সদা সতর্ক থাকবেন কর্মী, আধিকারিকরা।

এদিকে সোমবার সকাল থেকে পরীক্ষামূলকভাবে কিছু ট্রেন চালানো হয় ব্যান্ডেল থেকে। মূলত নতুন ব্যবস্থাটি কতটা কার্যকরী হচ্ছে সেটাও দেখা হয়। ব্যান্ডেল থেকে হাওড়া পর্যন্ত কিছু ট্রেন ছাড়া হয়। বেলাতে বর্ধমান, নৈহাটি, কাটোয়া লাইনেও ট্রেন চালিয়ে দেখা হয়। রেলের কর্তারাও সবদিক খতিয়ে দেখেন।

বন্ধ করুন