বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > করোনা চিকিৎসার জন্য পর্যাপ্ত ওষুধ পাঠানো হচ্ছে না, মোদীকে অভিযোগ মমতার
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ফাইল ছবি, সৌজন্য পিটিআই)

করোনা চিকিৎসার জন্য পর্যাপ্ত ওষুধ পাঠানো হচ্ছে না, মোদীকে অভিযোগ মমতার

ক্রমশ বাড়ছে করোনাভাইরাসের আক্রান্তের সংখ্যা।

ক্রমশ বাড়ছে করোনাভাইরাসের আক্রান্তের সংখ্যা। দৈনিক রেকর্ড তৈরি হচ্ছে। সেই পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দাবি করলেন,  চিকিৎসার জন্য রাজ্যের হাতে পর্যাপ্ত সংখ্যায় রেমডেসিভির ওষুধ নেই। শুধু তাই নয়, রাজ্যের ভাঁড়ারে নেই কোনও টসিলিজুম্যাব ওষুধও। পুরো বিষয়টিতে মোদীর হস্তক্ষেপ দাবি করেছেন।

রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে রবিবার মোদীকে চিঠি লেখেন মমতা। সেখানে করোনা টিকাকরণ, অক্সিজেন ও প্রয়োজনীয় ওষুধের সরবরাহ নিয়ে মোদীর হস্তক্ষেপের আর্জি জানান। মমতা দাবি করেন, করোনার চিকিৎসার জন্য রাজ্যের হাতে পর্যাপ্ত ওষুধ নেই। চিঠিতে তিনি বলেন, ‘আমাদের ৬,০০০ ভায়ালের মতো রেমডেসিভির এবং ১,০০০ ভায়াল টসিলিজুম্যাবের প্রয়োজন আছে। তবে আপাতত দৈনিক আমাদের হাতে মাত্র ১,০০০ ভায়াল থাকছে। আর টসিলিজুম্যাব আর আসছে না।’ উপযুক্ত কর্তৃপক্ষকে যত দ্রুত সম্ভব পর্যাপ্ত ওষুধ জোগানের বিষয়টি নিশ্চিত করার জন্য মোদীকে আর্জি জানিয়েছেন মমতা।

গত কয়েকদিন ধরে বাংলায় এমনিতেই করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে। রোজই আক্রান্তের নিরিখে রেকর্ড তৈরি হচ্ছে। শনিবার দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা ৭,০০০-এর গণ্ডি ছাড়িয়ে গিয়েছে। ভোটের জেরে সেই সংখ্যাটা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা বিশেষজ্ঞদের। সেই পরিস্থিতিতে টিকাকরণের উপর জোর দিয়েছেন মমতা। চিঠিতে মমতা অভিযোগ করেন, গত ২৪ ফেব্রুয়ারি একটি চিঠি লিখেছিলেন। তাতে রাজ্য টিকা কিনতে চাওয়ার বিষয়টি জানানো হয়েছিল। কিন্তু তার কোনও উত্তর মেলেনি। চিঠিতে সেই বিষয়টির উল্লেখ করে মমতা দাবি করেছেন, রাজ্যবাসীর বিনামূল্যে টিকাকরণের জন্য চেষ্টা করা হয়েছে। কিন্তু কেন্দ্র টিকা না পাঠানোয় সেই কাজটা সম্ভব হয়নি।

বন্ধ করুন