বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Bidhan Market: ফুটপাত দখলমুক্ত করতে গিয়ে বিক্ষোভের মুখে শিলিগুড়ির ডেপুটি মেয়র
ফুটপাত থেকে জিনিসপত্রগুলো সরিয়ে রাখার জন্য ব্যবসায়ীদের অনুরোধ করেন শিলিগুড়ির ডেপুটি মেয়র
ফুটপাত থেকে জিনিসপত্রগুলো সরিয়ে রাখার জন্য ব্যবসায়ীদের অনুরোধ করেন শিলিগুড়ির ডেপুটি মেয়র

Bidhan Market: ফুটপাত দখলমুক্ত করতে গিয়ে বিক্ষোভের মুখে শিলিগুড়ির ডেপুটি মেয়র

  • শিলিগুড়ির বিধান মার্কেট সংস্কার নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই নানা টানাপোড়েন চলেছে। তবে সংস্কার তো দূরের কথা কার্যত জতুগৃহ হয়ে গিয়েছে গোটা বাজার। শিলিগুড়িতে বেড়াতে গেলে পর্যটকদের অনেকেই একবার ঘুরে যান এই বাজারে।

শিলিগুড়ির বিধান মার্কেট সংলগ্ন ফুটপাতকে দখলমুক্ত করা নিয়ে বার বারই নানা টানোপোড়েন চলেছে। বৃহস্পতিবার সেই ফুটপাত দখলমুক্ত করতে গিয়ে বিক্ষোভের মুখে পড়লেন শিলিগুড়ি পুরনিগমের ডেপুটি মেয়র রঞ্জন সরকার। এদিন তাঁর সঙ্গে জঞ্জাল বিভাগের মেয়র পারিষদ মানিক দে ও ২ নম্বর বোরোর চেয়ারম্যান মহম্মদ আলমও ছিলেন। তাঁদেরকে ঘিরেও ধরেও বিক্ষোভ দেখানো হয় বলে অভিযোগ। এই ঘটনাকে ঘিরে এলাকায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়ায়। তবে ব্যবসায়ীদের হস্তক্ষেপেই পরবর্তী সময় পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

এদিন রঞ্জন সরকার বিভিন্ন দোকানের সামনে গিয়ে ফুটপাত থেকে জিনিসপত্র সরানোর জন্য আবেদন করেন। এদিকে পুর নিগমের পক্ষ থেকে ব্যবসায়ীদের জানানো হয়, গোটা এলাকায় জতুগৃহ হয়ে রয়েছে। একটা দুর্ঘটনা হয়ে গেলে ভয়াবহ পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে। এরপরই ব্যবসায়ীদের একাংশ নানা দাবি তুলে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন।

ডেপুটি মেয়র রঞ্জন সরকার, ফুটপাতের হকারদের বিরুদ্ধে আমরা কিছু বলিনি। যাদের বড় দোকান রয়েছে তাদের একাংশ ফুটপাত দখল করে নিচ্ছে। তাদের বলেছি। আমরা গরিব মানুষের পেটে লাথি মারতে চাইছি না। তবে আমরা বলছি মানুষের যাতায়াতের জায়গা ছেড়ে বসুন। তবে কারোর চোখ রাঙানিকে আমরা ভয় পাই না। বাইরে থেকে কে কী এসে বলল তা বলতে পারব না। কোনও শক্তির কাছে আমরা মাথানত করছি না। ব্যবসায়ীদের একাংশের দাবি, এখানে তিনি এসেছিলেন আমরা তাতে খুশি। কিছু অবৈধ দোকানদার তারা দু চারটে কথা বলেছেন। আমরা এনিয়ে ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছি। তার সব অন্য দলের লোক।

বন্ধ করুন