বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Nandigram: নন্দীগ্রামে বিজেপির মণ্ডল সভাপতি–সহ কর্মীদের গণইস্তফা, যোগ দেবেন কি তৃণমূলে?‌

Nandigram: নন্দীগ্রামে বিজেপির মণ্ডল সভাপতি–সহ কর্মীদের গণইস্তফা, যোগ দেবেন কি তৃণমূলে?‌

বিজেপির সংগঠনে ব্যাপক ভাঙন (PTI)

এবার সরাসরি নেতৃত্বের উপর ক্ষোভ প্রকাশ করে দল ছাড়লেন পূর্ব মেদিনীপুরের নন্দীগ্রাম মণ্ডল–৪ এর বিজেপি সভাপতি চন্দ্রকান্ত মণ্ডল এবং কমিটির একাধিক সদস্যরা। পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রাক্কালে এই দল ছাড়ার ঘটনায় চাপে পড়ে গিয়েছে জেলা নেতৃত্ব। যদি এভাবে উইকেট পতন হতে থাকে তাহলে সংগঠন বলে আর কিছু থাকবে না।

পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রাক্কালে খোদ বিরোধী দলনেতার বিধানসভা কেন্দ্রে রক্তক্ষরণ শুরু হয়ে গেল। বিজেপির সংগঠনে ব্যাপক ভাঙন দেখা গেল শনিবারের বারবেলায়। শুভেন্দু অধিকারীর খাসতালুকে বিজেপি থেকে গণইস্তফা দিতে শুরু করলে বিজেপি নেতা থেকে কর্মীরা। এমনকী গেরুয়া শিবির ছাড়লেন নন্দীগ্রামের মণ্ডল সভাপতি–সহ একাধিক কর্মীরা। এই ঘটনা প্রকাশ্যে আসতেই ঘাম ছুটে গিয়েছে বিজেপি জেলা নেতৃত্বের। কারণ পঞ্চায়েত নির্বাচন এখন দুয়ারে। সেখানে এমন করে দল বেঁধে দল ছেড়ে দিলে নির্বাচনে ব্যাপক প্রভাব পড়বে।

কেন বিজেপি ছাড়লেন নেতা–কর্মীরা?‌ সূত্রের খবর, এবার সরাসরি নেতৃত্বের উপর ক্ষোভ প্রকাশ করে দল ছাড়লেন পূর্ব মেদিনীপুরের নন্দীগ্রাম মণ্ডল–৪ এর বিজেপি সভাপতি চন্দ্রকান্ত মণ্ডল এবং কমিটির একাধিক সদস্যরা। পঞ্চায়েত নির্বাচনের প্রাক্কালে এই দল ছাড়ার ঘটনায় চাপে পড়ে গিয়েছে জেলা নেতৃত্ব। কারণ এটি স্বয়ং বিরোধী দলনেতার বিধানসভা কেন্দ্র। এখানেই যদি এভাবে উইকেট পতন হতে থাকে তাহলে সংগঠন বলে আর কিছু থাকবে না। এই পরিস্থিতিতে আবার তাঁদের কাছে গিয়ে বোঝানোর হবে কিনা ভাবনাচিন্তা চলছে।

আর কী জানা যাচ্ছে?‌ আজ, শনিবার তমলুক সাংগঠনিক জেলার সভাপতিকে ইস্তফাপত্র পাঠিয়ে নিজেদের সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে দিয়েছেন তাঁরা। সূত্রের খবর, বিজেপি ছাড়ার পর চন্দ্রকান্ত মণ্ডল নিজের দলবল নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিতে চলেছেন। তাঁর সঙ্গে একাধিক কর্মীরাও তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিতে চান। সেক্ষেত্রে পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে এখানে আরও সংগঠন শক্তিশালী হবে তৃণমূল কংগ্রেসের। যা কপালে ভাঁজ ফেলবে শুভেন্দু অধিকারীর বলে মত রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের। তাই সেখানে আলোচনা শুরু হয়েছে।

ঠিক কী লেখা হয়েছে চিঠিতে?‌ দলত্যাগের এই ঘটনায় শোরগোল পড়ে গিয়েছে পূর্ব মেদিনীপুর জেলার রাজনীতিতে। কারণ রাজ্যে পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে বিরোধী দলনেতার খাসতালুকে এই ভাঙনে যথেষ্ট চাপের মুখে পড়তে চলেছে বিজেপি। তমলুক সাংগঠনিক জেলার সভাপতিকে দেওয়া ইস্তফাপত্রে লেখা হয়েছে, ‘আপনাকে দুঃখের সঙ্গে জানাতে বাধ্য হচ্ছি, আমার মণ্ডলে ভারতীয় জনতা পার্টির সাংবিধানিক পদ্ধতি না মেনে মণ্ডল যেভাবে বিভাজন করা হল, তাতে আমার মনে হয় আমার এই পদে আর থাকা ঠিক হবে না। আমার কমিটির সকলেও একই সিদ্ধান্ত নিয়েছে। তাই মহাশয় আমরা সকলে সমস্ত পদ থেকে ইস্তফা দিচ্ছি।’

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

বাংলার মুখ খবর
বন্ধ করুন

Latest News

জল্পনায় সিলমোহর, বাবা-মা হতে চলেছেন দীপিকা রণবীর, কবে আসছে প্রথম সন্তান? ‘BJPএবং সন্দেশখালির মহিলাদের আন্দোলনের জন্য…’, শাহজাহানের গ্রেফতারি নিয়ে সুকান্ত 'ওঁর মতো...' যখন-তখন বিতর্কিত মন্তব্য করে বসেন, তবুও জয়ার হয়ে সাফাই নভ্যার! রণজয়ের নাম ভাঙিয়ে ৭৩ লক্ষ টাকার প্রতারণা! ফ্যানেদের সতর্ক করলেন পর্দার অনিকেত কাল থেকে শুরু নতুন মাস, কেমন কাটবে এই মাসটি? সব ভালো হবে তো? রইল সব রাশির রাশিফল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজগুলিতে প্লেসমেন্টের আকাল,তাও মোটা বেতনের চাকরি দিচ্ছে এই সংস্থা ভেঙেছিল স্বপ্ন, অবসাদে মাত্র ৩৮ বছর বয়সে নিজের প্রাণ দিলেন সফটওয়্যার সংস্থার CEO চালের দাম নিয়ন্ত্রণে রাখতে পদক্ষেপ ভারতের, খিদের জ্বালায় পুড়তে পারে বাকিদের পেট রাঁচি টেস্টে ভারতের বিরুদ্ধে সাদামাটা পারফরম্যান্স, রবিনসনকে একহাত নিলেন আথারটন ঘুরে দাঁড়াতে বাজার থেকে ৪৫ হাজার কোটি তুলবে ভোডাফোন-আইডিয়া, সবুজ সংকেত বোর্ডের

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.