বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > কাটমানিখোর তৃণমূল নেতাকে BJPতে নেওয়া যাবে না, কৈলাসকে ঘিরে বিক্ষোভ দলের কর্মীদের
শনিবার পুরাতন মালদায় বিজেপির সভায় কৈলাস বিজয়বর্গীয়। 
শনিবার পুরাতন মালদায় বিজেপির সভায় কৈলাস বিজয়বর্গীয়। 

কাটমানিখোর তৃণমূল নেতাকে BJPতে নেওয়া যাবে না, কৈলাসকে ঘিরে বিক্ষোভ দলের কর্মীদের

  • সভার শেষে নৃপেনবাবু বিজেপিতে যোগদান করবেন বলে ঘোষণা হতেই বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন বিজেপি কর্মীরা। তাঁদের দাবি, ওই বিদায়ী কাউন্সিলর নানা দুর্নীতিতে যুক্ত।

ফের বিজেপি কর্মীদের বিক্ষোভে পণ্ড হল তৃণমূল নেতার বিজেপিতে যোগদান। শনিবার সন্ধ্যায় পুরাতন মালদার মঙ্গলবাড়ি এলাকায় দলীয় কর্মীদের বিক্ষোভ এমন জায়গায় পৌঁছয় যে মঞ্চ ছাড়তে হয় কৈলাস বিজয়বর্গীয়, সায়ন্তন বসুদের। ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দিয়েছে বিজেপি নেতৃত্ব। 

শনিবার সন্ধ্যা মঙ্গলবাড়ির পালপাড়া এলাকায় ছিল বিজেপির সভা। সেখানেই বিজেপিতে যোগদান করতে পৌঁছন পুরসভার ১৯ নম্বর ওয়ার্ডের বিদায়ী কাউন্সিলর নৃপেন পাল। ২০১৫ সালের পুর নির্বাচনে ওই ওয়ার্ড থেকে বিজেপির টিকিটে জিতে তৃণমূলে যোগ দিয়েছিলেন তিনি। এদিন ফের বিজেপিতে যোগ দিতে পৌঁছে যান সভাস্থলে।

সভার শেষে নৃপেনবাবু বিজেপিতে যোগদান করবেন বলে ঘোষণা হতেই বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন বিজেপি কর্মীরা। তাঁদের দাবি, ওই বিদায়ী কাউন্সিলর নানা দুর্নীতিতে যুক্ত। বিভিন্ন প্রকল্পে সাধারণ মানুষের থেকে কাটমানি আদায় করেছেন তিনি। এখন তৃণমূলের সূর্য ডুবতে দেখে ফের বিজেপিতে যোগদান করতে চাইছেন। তাঁকে কোনও মতেই দলে নেওয়া চলবে না। 

বিক্ষোভরত দলীয় কর্মীদের শান্ত করার চেষ্টা করেন উত্তর মালদার বিজেপি সাংসদ খগেন মুর্মু। কিন্তু তেমন কাজ হয়নি। দলীয় কর্মীদের বিক্ষোভের মুখে মঞ্চ ছাড়েন কৈলাস বিজয়বর্গীয়সহ অন্য নেতারা। পণ্ড হয়ে যায় নৃপেনবাবুর বিজেপিতে যোগদান। 

বন্ধ করুন