বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ‘‌শিশুদের আদর করা থেকে দূরে থাকতে হবে’‌, তৃতীয় ঢেউয়ের আশঙ্কায় পরামর্শ মমতার
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ছবি সৌজন্য ফেসবুক)
মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (ছবি সৌজন্য ফেসবুক)

‘‌শিশুদের আদর করা থেকে দূরে থাকতে হবে’‌, তৃতীয় ঢেউয়ের আশঙ্কায় পরামর্শ মমতার

  • এই মন্তব্য থেকে স্পষ্ট যে তিনিও একইরকম চিন্তিত শিশুদের নিয়ে। তাই তো এই ভাবনা তিনি ব্যক্ত করেছেন।

করোনাভাইরাসের তৃতীয় ঢেউয়ে শিশুদের সংক্রমণ বাড়তে পারে। এই আশঙ্কা করছেন চিকিৎসক থেকে স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা। তাতে অনেকেই চিন্তিত। একইরকম চিন্তিত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। তাই তো প্রকল্পের উদ্বোধনের ব্যস্ততার মধ্যে শিশুদের নিয়ে তাঁর চিন্তা তুলে ধরলেন। আর শিশুদের থেকে শারীরিক দূরত্ব বজার রাখার পরামর্শ দিলেন। পানাগড়ের অনুষ্ঠান থেকে তিনি বলেন, ‘বাচ্চাদের খুব আদর করি আমরা। কখনও গালে চুমু খাই। কখনও মাথায় হাত বুলিয়ে দিই। কখনও মাথায় একটা চুমু খেয়ে নিলাম। এখন এগুলো থেকে দূরে থাকতে হবে। এমনিই আদর করে দিন। ওদের ভাল থাকতে হবে। ওরা আমাদের ভবিষ্যৎ।’

এই মন্তব্য থেকে স্পষ্ট যে তিনিও একইরকম চিন্তিত শিশুদের নিয়ে। তাই তো এই ভাবনা তিনি ব্যক্ত করেছেন। টিকা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‘‌টিকা আমাদের হাতে নেই। এটা কেন্দ্র পাঠায়। আমরা যা টিকা পেয়েছি, তার মাইনাস সাত শতাংশ অপচয় হয়েছে। আর কিছু অপচয় হয়নি। বুধবার পর্যন্ত চার কোটি টিকাকরণ হয়েছে। কিন্তু শিশুদের ধরলে আমার প্রয়োজন ১৪ কোটি টিকা।’‌ কিন্তু টিকা নিতে গিয়ে হুড়োহুড়ি করে ভিড় না করা এবং আতঙ্কিত না হওয়ার পরামর্শও দিয়ে তিনি বলেন, ‘‌মাস্ক পরুন, শরীর ঠিক রাখুন। চিকিৎসকদের পরামর্শে নিউমোনিয়া ইঞ্জেকশনটা দিতে হবে।’‌

উল্লেখ্য, রাজ্যে টিকা গতদিন পর্যন্ত পেয়েছিলেন ১২ লক্ষ ৩৬ হাজার ৮২৫ জন। কিন্তু এদিন রাত ১০টা পর্যন্ত কো–উইন পোর্টাল থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী টিকা প্রাপকের সংখ্যা ছিল ৪ লক্ষ ৪২ হাজার ৮১১ জন। বুধবার পর্যন্ত রাজ্যে টিকা পেয়েছেন মোট ৪ কোটি ১৫ লক্ষ ৮৪ হাজার ৯৬৬ জন। সুতরাং টিকা দানে বাংলা কার্যত রেকর্ড করেছে।

বন্ধ করুন