বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > মোদীর পায়ের কাছে বিবেকানন্দ, রবীন্দ্রনাথ, ক্ষুদিরামের ছবি! থানায় অভিযোগ বিজেপি–র
এই সেই বিতর্কিত ফ্লেক্স। ছবি : সংগৃহীত
এই সেই বিতর্কিত ফ্লেক্স। ছবি : সংগৃহীত

মোদীর পায়ের কাছে বিবেকানন্দ, রবীন্দ্রনাথ, ক্ষুদিরামের ছবি! থানায় অভিযোগ বিজেপি–র

  • যদিও এ সবের পেছনে তৃণমূলের হাত রয়েছে বলে দাবি বিজেপি সাংসদ সুকান্ত মজুমদারের। তাঁর অভিযোগ, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে অপমান করতে তৃণমূল পরিকল্পনামাফিক এই কাজ করেছে।

কাটআউটে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর পায়ের কাছে শহিদবেদিতে শোভা পাচ্ছিল ‘দেশনায়ক’ নেতাজি সুভাষচন্দ্র বসুর ছবি। পূর্ব মেদিনীপুরের খেজুরিতে এই ঘটনা ঘটে নেতাজি জন্মজয়ন্তীর দিন। আর এবার ২৬ জানুয়ারি প্রজাতন্ত্র দিবসের আগে বালুরঘাটের বিভিন্ন প্রান্তে ফের দেখা গেল মোদীর ছবি–দেওয়া বিতর্কিত ফ্লেক্স।

সেই ফ্লেক্সে প্রধানমন্ত্রীর পায়ের তলায় শুধু নেতাজি নয়, রয়েছে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, স্বামী বিবেকানন্দ, ক্ষুদিরাম বসু ও ঋষি অরবিন্দের ছবি। এবং ফ্লেক্সে জানানো হয়েছে প্রজাতন্ত্র দিবসের শুভেচ্ছা। ফ্লেক্সের নীচে লেখা রয়েছে— ‘‌সৌজন্যে— সুকান্ত মজুমদার, সাংসদ’‌। স্বাভাবিকভাবেই এ ঘটনায় বিপাকে পড়েছে বালুরঘাটের বিজেপি নেতৃত্ব।

যদিও এ সবের পেছনে তৃণমূলের হাত রয়েছে বলে দাবি বিজেপি সাংসদ সুকান্ত মজুমদারের। তাঁর অভিযোগ, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে অপমান করতে তৃণমূল পরিকল্পনামাফিক এই কাজ করেছে। ইতিমধ্যে এ ঘটনার প্রতিবাদে পথ অবরোধ করে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন বিজেপি সাংসদ। যদিও তৃণমূল এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

এদিন সকালে এ ঘটনার প্রতিবাদে বালুরঘাটের বোল্লা এলাকায় জাতীয় সড়ক অবরোধ করেন বিজেপি নেতা–কর্মীরা। শুধু বোল্লা নয়, বালুরঘাটের পতিরাম, বাউল এলাকাতেও নরেন্দ্র মোদীর এই বিতর্কিত একাধিক ফ্লেক্স চোখে পড়েছে। সাংসদ সুকান্ত মজুমদারের অভিযোগ, ‘‌আমাকে এবং বিজেপিকে কালিমালিপ্ত করার চক্রান্ত এই ঘটনা। এ ব্যাপারটি দেখছে আমাদের আইটি সেল। আগামী নির্বাচনে তৃণমূল এখানে জিততে পারবে না, তাই এভাবে কুৎসা করছে।’‌

বন্ধ করুন