ধসের কবলে পড়ে দার্জিলিং জেলার লোধামা থানার অন্তর্গত গ্রামের বসতবাড়ি।ছবি সৌজন্যে কাঠমান্ডু টাইমস।
ধসের কবলে পড়ে দার্জিলিং জেলার লোধামা থানার অন্তর্গত গ্রামের বসতবাড়ি।ছবি সৌজন্যে কাঠমান্ডু টাইমস।

দার্জিলিঙে আচমকা ধসের কবলে বসতবাড়ি, নিহত একই পরিবারের ৩ জন

  • ভোররাতে আচমকা পাহাড়ি ধসের কবলে পড়ে দার্জিলিং জেলার লোধামা থানার অন্তর্গত গ্রামের এক বসতবাড়ি।

দার্জিলিঙে ধসের গ্রাসে প্রাণ হারালেন নবীন দম্পতি ও তাঁদের চার বছরের ছেলে। আত্মীয়ের বাড়ি বেড়াতে গিয়ে ভাগ্যক্রমে বাঁচলেন দম্পতির কন্যাসন্তান।

শনিবার ভোররাতে আচমকা পাহাড়ি ধসের কবলে পড়ে দার্জিলিং জেলার লোধামা থানার অন্তর্গত গ্রামের এক বসতবাড়ি। ঘটনায় মারা গিয়েছেন একই পরিবারের নিম দোরজে তামাং (৩৩), তাঁর স্ত্রী প্রেম ডিকি তামাং (২৯) ও শিশুপুত্র নিহাল (৪)।

পুলিশ জানিয়েছে, ভোর ৪.৩০ নাগাদ লোধামা বাজার থেকে ৪ কিমি দূরে আচমকা পাহাড়ে ধস নামলে বাড়িটির উপরে একাধিক বিশাল পাথরের চাঁই এসে পড়ে। ঘুমের মধ্যেই মৃত্যু হয় তিন জনের। ধ্বংসস্তূপ থেকে তিনটি দেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

নিহত দম্পতির বড় মেয়েসন্ধ্যা আগের দিন তার কাকার বাড়ি বেড়াতে গিয়েছিল বলে বাবা-মায়ের সঙ্গে ছিল না। সেি কারণে সে বেঁচে গিয়েছে।

পুলিশের সন্দেহ, দুর্ঘটনাগ্রস্ত বাড়িটির পাশে থাকা পানীয় জলের পাইপ লিক হওয়ায় পাহাড়ের মাটি আলগা হয়ে যায় এবং আচমকা ধস নামে।

বন্ধ করুন