বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > জেল থেকে মুক্তি পেলেন বেঙ্গালুরুতে বাংলাদেশি সন্দেহে ধৃত পুর্ব বর্ধমানের দম্পতি

জেল থেকে মুক্তি পেলেন বেঙ্গালুরুতে বাংলাদেশি সন্দেহে ধৃত পুর্ব বর্ধমানের দম্পতি

বর্ধমানের সেই দম্পতি।

তাঁদের দুই বছরের শিশুও তাঁদের সঙ্গে জেলেই ছিলেন। বেঙ্গালুরুর পুলিশ তাঁদের  বাংলাদেশের নাগরিক সন্দেহ করেছিল এবং বিদেশি আইনে তাঁদের বিরুদ্ধে মামলা রুজু করেছিল। তাঁরা বার বার পুলিশকে বোঝানোর চেষ্টা করেছিল যে তাঁরা পূর্ব বর্ধমানের জামালপুর থানার অন্তর্গত ঝাউগ্রামের তেলেপুকুরের বাসিন্দা।

বাংলাদেশি সন্দেহে কর্ণাটকের জেলে কাটাতে হয়েছিল পূর্ব বর্ধমানের দম্পতিকে। ৩০১ দিন জেলে থাকার পর অবশেষে তাঁদের জামিন দিল আদালত। জামিন পেয়ে বৃহস্পতিবার তাঁরা ট্রেনে করে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছেন। ওই দম্পতি পলাশ অধিকারী এবং তাঁর স্ত্রী শুক্লা অধিকারী জেলে ছিলেন ২০২২ সালের জুলাই মাস থেকে।

তাঁদের দুই বছরের শিশুও তাঁদের সঙ্গে জেলেই ছিলেন। বেঙ্গালুরুর পুলিশ তাঁদের বাংলাদেশের নাগরিক সন্দেহ করেছিল এবং বিদেশি আইনে তাঁদের বিরুদ্ধে মামলা রুজু করেছিল। তার পর থেকে জেলেই ছিল ওই দম্পতি। তাঁরা বার বার পুলিশকে বোঝানোর চেষ্টা করেছিল যে তাঁরা পূর্ব বর্ধমানের জামালপুর থানার অন্তর্গত ঝাউগ্রামের তেলেপুকুরের বাসিন্দা। পরিচয় পত্রও দেখিয়েছিল। তারপরেও কোনও লাভ হয়নি।

পরে বেঙ্গালুরু পুলিশের একটি দল পূর্ব বর্ধমানে পলাশের বাড়িতে গিয়ে খোঁজখবর নেয়। দলটি জামালপুরের বিডিও-র সঙ্গে দেখা করে নথিপত্র পরীক্ষা করে। পলাশের আত্মীয়রাও বেঙ্গালুরু পৌঁছন এবং তাঁদের জামিনের আবেদন করার জন্য আইনজীবীর সাহায্য নেন। এদিকে, পুলিশ তাঁদের বিরুদ্ধে চার্জশিটও দাখিল করে।

পলাশের আত্মীয় সুজয় হালদার বলেন, দম্পতিকে ২৮ এপ্রিল জামিন দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু, তাঁরা ২৪ মে জেল থেকে মুক্তি পায়। কারণ তাঁরা জামিনের বন্ড জমা দিতে পারেননি। পরে জামিনদার পাওয়ায় তাঁরা জমির দলিল জমা দিয়ে জামিন পান। বৃহস্পতিবার সকালে সুজয় হালদার ওই দম্পতির সঙ্গে হাওড়াগামী দুরন্ত এক্সপ্রেসে উঠেছিলেন। শুক্রবার তাঁদের বাড়িতে পৌঁছানোর কথা রয়েছে।

পলাশের বোন সাথী অধিকারী একটি বিউটি পার্লারে কাজ করেন। মামলা লড়ার জন্য তিনি যাবতীয় খরচ করেছিলেন। তিনি বলেন, ‘২৪ মে রাত সাড়ে ৯টার দিকে আমার কাছে ফোন আসে যে দাদা এবং বৌদি জেল থেকে মুক্তি পেয়েছেন। আমি তাঁদের সঙ্গে ভিডিয়ো কলে কথা বলেছিলাম। ভিডিয়ো কল চলাকালীন আমার মা কান্নায় ভেঙে পড়েছিলেন। দুজনকেই খুব দুর্বল দেখাচ্ছিল। আমি ভাইপোর সঙ্গেও কথা বলেছি।’ জেল থেকে ছাড়া পাওয়ায় খুশি ওই দম্পতির পরিবার।

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

বাংলার মুখ খবর

Latest News

Kenya বনাম Nigeria ম্যাচ শুরু হতে চলেছে, পাল্লা ভারি কোন দিকে? সূর্যগ্রহণে গমন করছেন শনিদেব, আগামী বছর জুড়ে নোটের বৃষ্টির মধ্যে থাকবে এই রাশি বাবাকে কোলে তুলে নিলেন! ভারতীয় দলে জায়গা পাওয়ার পরেই হর্ষিতের বিশেষ সেলিব্রেশন ভাটপাড়ায় বন্দুক হাতে TMCP নেতার ফটোশ্যুট, ছবি ভাইরাল হলেও চুপ পুলিশ হিংসা কবলিত বাংলাদেশ থেকে কোনওক্রমে মেঘায়লে এলেন ২০২ ভারতীয়, ১০১ নেপালি ৮১টি পান্না বসানো ঘড়ি পরে আম্বানির বিয়েতে গিয়েছিলেন রণবীর, জানেন এটির দাম কত? কাঁথিতে চরমে TMCর গোষ্ঠীকোন্দল, উত্তমের বিরুদ্ধে কলকাতায় নালিশ করলেন সুপ্রকাশ Euro 2024: চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পরে নিষিদ্ধ স্প্যানিশ ফুটবল ফেডারেশনের সভাপতি রোচা বিক্রি হয়ে যাচ্ছে গুজরাট টাইটান্স দল, কেনার জন্যে ঝাঁপাচ্ছে আদানিরা: রিপোর্ট গলায় অস্ত্রোপচার, সরানো হল টিউমার! কেমন আছেন স্যার জিওফ্রে বয়কট?

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.