বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > দ্রুতগতিতে ধেয়ে আসছে 'ইয়াস', শক্তি বাড়িয়ে পরিণত হল প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে

দ্রুতগতিতে স্থলভাগের দিকে ধেয়ে আসছে 'ইয়াস'। সেইসঙ্গে ক্রমশ বাড়াচ্ছে শক্তি। সোমবার রাতের মধ্যেই প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়েছে সেটি। যা পরবর্তী ১২ ঘণ্টায় আরও শক্তিশালী হয়ে অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হবে।

মৌসম ভবনের বুলেটিনে জানানো হয়েছে, শেষ ছ'ঘণ্টায় (রাত ১১ টা ৩০ মিনিট পর্যন্ত) প্রায় ১০ কিলোমিটার বেগে উত্তর এবং উত্তর-পশ্চিম দিকে অগ্রসর হয়েছে 'ইয়াস'। যা আগের থেকে ঢের বেশি গতি। আপাতত সেটি পারাদ্বীপের দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্বে ৩৯০ কিলোমিটার, বালাসোরের দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্বে ৪৯০ কিলোমিটার, দিঘার দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব দিকে ৪৭০ কিলোমিটার এবং বাংলাদেশের খেপুপাড়ার দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে দূরে অবস্থান করছে। যা ক্রমশ শক্তি সঞ্চয় করে আগামিকাল (বুধবার) ভোরের দিকে উত্তর ওড়িশা ও পশ্চিমবঙ্গ উপকূলের কাছে পৌঁছাবে। তারপর দুপুরে পারাদ্বীপ এবং সাগরের মাঝখানে বালাসোরের কাছাকাছি স্থলভাগে আছড়ে পড়বে।

ঝড়ের পূর্বাভাস

ওড়িশার তুলনায় পশ্চিমবঙ্গে 'ইয়াস'-এর দাপট অনেকটাই কম থাকছে। মূলত ওড়িশা লাগোয়া পূর্ব মেদিনীপুরের উপকূলবর্তী এলাকা নিয়ে চিন্তা বেশি আছে। তাছাড়া দুই ২৪ পরগনা এবং দক্ষিণবঙ্গের অন্যান্য জেলায় 'ইয়াস'-এর দাপট মারাত্মক হবে না। ঝড়ের বেগ আমফানের কাছে পৌঁছাবে না। মৌসম ভবনের তরফে জানানো হয়েছে, মঙ্গলবার ওড়িশা, পশ্চিমবঙ্গ এবং বাংলাদেশের উপকূলবর্তী এলাকায় ঘণ্টায় ৫০-৬০ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইবে। দমকা হাওয়ার বেগ কখনও কখন ঘণ্টায় ৭০ কিলোমিটারে পৌঁছে যেতে পারে। মঙ্গলবার রাত এবং বুধবার ভোর থেকে উত্তর ওড়িশা এলং লাগোয়া পশ্চিমবঙ্গ উপকূলে ঝড়ের বেগ ঘণ্টায় ১৫৫-১৬৫ কিলোমিটারে পৌঁছে যেতে পারে। দমকা হাওয়ার বেগ কখনও কখনও পৌঁছে যেতে পারে ঘণ্টায় ১৮৫ কিলোমিটারে। পূর্ব মেদিনীপুর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ঘণ্টায় ১০০-১২০ কিলোমিটারে ঝড়ের সম্ভাবনা আছে। দমকা হাওয়ার বেগ কখনও কখন ঘণ্টায় ১৪৫ কিলোমিটারে পৌঁছে যেতে পারে। ঝাড়গ্রাম, পশ্চিম মেদিনীপুর, উত্তর ২৪ পরগনায় ঘণ্টায় ৮০-৯০ কিলোমিটার বেগে ঝড় ওঠার সম্ভাবনা আছে। সেখানে দমকা হাওয়ার বেগ কখনও কখন ঘণ্টায় ১১০ কিলোমিটারে পৌঁছে যেতে পারে।

বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস

মঙ্গলবার পশ্চিমবঙ্গের অধিকাংশ জায়গায় হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত হবে। তবে মেদিনীপুর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনার কয়েকটি জায়গায় ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা আছে। এছাড়া হাওড়া, হুগলি এবং উত্তর ২৪ পরগনার কয়েকটি এলাকায় ভারী বৃষ্টি হতে পারে।

বুধবার ঝাড়গ্রাম, মেদিনীপুর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনার কয়েকটি অংশে অতি ভারী বৃষ্টিপাতের পূর্বাভাস আছে। পুরুলিয়া, নদিয়া, বর্ধমান, বাঁকুড়া, বীরভূম, হাওড়া, হুগলি, উত্তর ২৪ পরগনা এবং কলকাতায় বিচ্ছিন্নভাবে ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে। নদিয়া, মুর্শিদাবাদ এবং দার্জিলিঙে বিচ্ছিন্নভাবে ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে।

জলোচ্ছ্বাসের পূর্বাভাস

সাধারণের থেকে দু'চার মিটার বেশি জলোচ্ছ্বাস হবে। তার জেরে দক্ষিণ ২৪ পরগনা এবং মেদিনীপুরের নিচু এলাকা প্লাবিত যেতে পারে।

বন্ধ করুন