বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > চাকরির নামে প্রতারণা, মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে কেস হওয়া উচিত, দাবি দিলীপের
সোমবার উৎকর্ষ বাংলার মঞ্চে চাকরির নিয়োগপত্র দেখাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। (PTI)

চাকরির নামে প্রতারণা, মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে কেস হওয়া উচিত, দাবি দিলীপের

  • নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে ‘উৎকর্ষ বাংলা’ নামে কারিগরি শিক্ষা দফতরের অনুষ্ঠানে যোগদানের পর হুগলির ১০৭ জন যুবক পেয়েছেন বেসরকারি সংস্থার নিয়োগপত্র। সেই নিয়োগপত্রে দেওয়া ফোন করলে ওই নিয়োগপত্র ভুয়ো বলে জানানো হয়েছে, এমনটাই দাবি ওই যুবক ও তাঁদের অভিভাবকদের।

উৎকর্ষ বাংলার নামে বেসরকারি চাকরির ভুয়ো নিয়োগপত্র বিতরণের অভিযোগে মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে মামলা হওয়া উচিত বলে মন্তব্য করলেন বিজেপি নেতা দিলীপ ঘোষ। শনিবার সকালে খড়গপুরে বসে একথা বলেন তিনি। দিলীপবাবু দাবি করেন, একটা চাকরি আজ পর্যন্ত দিতে পারেননি। খালি মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে ‘উৎকর্ষ বাংলা’ নামে কারিগরি শিক্ষা দফতরের অনুষ্ঠানে যোগদানের পর হুগলির ১০৭ জন যুবক পেয়েছেন বেসরকারি সংস্থার নিয়োগপত্র। সেই নিয়োগপত্রে দেওয়া ফোন করলে ওই নিয়োগপত্র ভুয়ো বলে জানানো হয়েছে, এমনটাই দাবি ওই যুবক ও তাঁদের অভিভাবকদের। এই নিয়ে গোটা রাজ্যজুড়ে শুরু হয়েছে তুমুল আলোচনা। তবে কি সরকারি মঞ্চ থেকে ভুয়ো নিয়োগপত্র বিলি হয়েছে? প্রশ্ন তুলেছে বিরোধী দলগুলি।

শিল্প নেই চাকরি নেই, বিশ্বকর্মা বাংলা থেকে পালিয়েছে: দিলীপ ঘোষ

শনিবার সকালে এই নিয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘পুরো ব্যাপারটা ভুয়ো ও মিথ্যা। মমতা ব্যানার্জি এতদিন ঢপ দিয়ে চালিয়ে এসেছেন। বিভিন্ন কোম্পানির নাম করে একটা চিঠি তৈরি করেছেন। সেটা উৎকর্ষ বাংলার খামে যাবে। সেই কোম্পানির সঙ্গে কারও কোনও কথা হয়নি। মাঝে কিছু ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি থাকে। সেই কোম্পানির নামও ভুয়ো। মমতা ব্যানার্জি চাপ নিতে পারছেন না। এদিকে বলছেন ৮৯ হাজার চাকরি আমার হাতে আছে। একটা চাকরি আজ পর্যন্ত দিতে পারেননি। খালি মিথ্যা প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। আবার একটা ড্রামা করলেন’।

দিলীপবাবু বলেন, ‘উনি মঞ্চেই ধরা পড়ে গেছিলেন। এটা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে কেস হওয়া উচিত। ওই কোম্পানিগুলোর কেস করা উচিত। যে সংস্থা আয়োজন করেছে তার নামে কেস হওয়া উচিত। এই যে সার্টিফিকেট দেওয়া হয়েছে পুরোটাই জালি। এর পুরো দায়িত্ব মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। এখনো মানুষকে ধোঁকা দিয়ে যাচ্ছেন উনি’।

 

বন্ধ করুন