বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ভবিষ্যতেও বড় নেতারা চলে যেতে পারেন, আমাদের কিছু বলার নেই: দিলীপ ঘোষ
দিলীপ ঘোষ।

ভবিষ্যতেও বড় নেতারা চলে যেতে পারেন, আমাদের কিছু বলার নেই: দিলীপ ঘোষ

  • লকেট চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে বিক্ষুব্ধদের বৈঠক নিয়ে তিনি বলেন, ‘কী কথা হয়েছে জানি না। তবে দল তাঁকে বড় জায়গা দিয়েছিল, সম্মান দিয়েছে, পদ দিয়েছে, করিমপুর বিধানসভায় উপ-নির্বাচনে টিকিট দিয়েছে।

জয়প্রকাশ মজুমদারের তৃণমূলে যোগদানে বিজেপির তেমন ক্ষতি হবে না। মঙ্গলবার এমনই দাবি করলেন বিজেপির সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ। এদিন শ্রীরামপুরে পুরভোটে দলীয় বৈঠকে যোগ দেওয়ার পর দিলীপবাবু বলেন, এর পরেও দলের বড় নেতারা চলে যেতে পারেন। আমাদের কিছু করার নেই।

এদিন দিলীপবাবু বলেন, এর আগেও দল ছেড়ে গেছেন বড় বড় নেতারা। পরেও যেতে পারেন। বিজেপির নীচুতলার কর্মীরা লড়াই করে পার্টি দাঁড় করিয়েছেন। তারা পার্টির সঙ্গেই রয়েছেন। তাদের ওপর অত্যাচার হয়েছে। তারা কিন্তু পার্টি ছাড়েননি। কেউ যদি চলে যায় তার যেখানে ঠিক মনে হয়েছে সেখানে যাচ্ছেন। এই নিয়ে আমাদের কিছু বলার নেই।

লকেট চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে বিক্ষুব্ধদের বৈঠক নিয়ে তিনি বলেন, ‘কী কথা হয়েছে জানি না। তবে দল তাঁকে বড় জায়গা দিয়েছিল, সম্মান দিয়েছে, পদ দিয়েছে, করিমপুর বিধানসভায় উপ-নির্বাচনে টিকিট দিয়েছে। তার পরেও যদি মনে হয় যে এখানে থাকা ঠিক নয়, সেটা তাঁর সিদ্ধান্ত’।

মঙ্গলবার দুপুরে কলকাতার নজরুল মঞ্চে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপস্থিতিতে তৃণমূলে যোগদান করেন সাময়িক বহিষ্কৃত বিজেপি নেতা জয়প্রকাশ মজুমদার। মাস কয়েক আগেও বিজেপির সহ-সভাপতির দায়িত্বে ছিলেন তিনি। তৃণমূলে যোগ দিতেই তাঁকে সহ-সভাপতির পদ দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 

বন্ধ করুন