বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Burdwan Medical College: রোগীর পেট কাটতেই বের হল ২৫০ টি পেরেক, ৩৫ টি কয়েন ও পাথর! হতবাক চিকিৎসকরা
রোগীর পেট থেকে অস্ত্রোপচার করে বের করা পেরেক এবং কয়েন। নিজস্ব ছবি।

Burdwan Medical College: রোগীর পেট কাটতেই বের হল ২৫০ টি পেরেক, ৩৫ টি কয়েন ও পাথর! হতবাক চিকিৎসকরা

  • হাসপাতাল সূত্রে খবর, পূর্ব বর্ধমানের মঙ্গলকোটের কৃষ্ণবাটি গ্রামের বাসিন্দা শেখ মইনুদ্দিন (৩৮)। দীর্ঘদিন ধরেই মানসিক সমস্যা রয়েছে মইউদ্দিনের। প্রায়ই গত ১৫ বছর ধরে তিনি মানসিক ভারসাম্যহীন। এর জন্য তাকে নিয়মিত তাকে চিকিৎসা করানো হয়।

তাজ্জব ঘটনা ঘটল বর্ধমানে। রোগীর পেট থেকে বের হল ২৫০ টি পেরেক। প্রবাদ আছে বিষ্ঠা খাওয়া যায় না দুর্গন্ধে, আর লোহা খাওয়া যায় না শক্তে। কিন্তু, সেই প্রবাদকে নস্যাৎ করে ২৫০ টি পেরেক গলাধঃকরণ করেছিলেন বর্ধমানের বাসিন্দা শেখ মইনুদ্দিন। শুধু পেরেকই নয়, ৩৫টি কয়েন, কয়েকটি পাথরও খেয়ে ফেলেছিলেন ওই ব্যক্তি। এমন ঘটনায় বিস্মিত চিকিৎসক থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষ। অবশেষে অস্ত্রোপচার করে পেরেক, কয়েন এবং পাথর তার পেট থেকে বের করতে পেরেছেন চিকিৎসকরা।

হাসপাতাল সূত্রে খবর, পূর্ব বর্ধমানের মঙ্গলকোটের কৃষ্ণবাটি গ্রামেরবাসিন্দা শেখ মইনুদ্দিন (৩৮)। দীর্ঘদিন ধরেই মানসিক সমস্যা রয়েছে মইউদ্দিনের। প্রায়ই গত ১৫ বছর ধরে তিনি মানসিক ভারসাম্যহীন। এর জন্য তাকে নিয়মিত তাকে চিকিৎসা করানো হয়। মানসিক ভারসাম্যহীন হাওয়ায় ঠিকমতো কথা বলতে পারে না মহিউদ্দিন। পরিবারের সদস্যরা জানান, বেশ কয়েকদিন ধরেই মইনুদ্দিনের পেটে ব্যথা করছিল। শনিবার ব্যথা বেশি হয়। ওইদিন শুধু বিকেলে এক গ্লাস দুধ ছাড়া আর কিছু খাননি তিনি। পেট ব্যথার কথা জানতে পেরে পরিবারের লোকেরা মইনুদ্দিনকে গত মঙ্গলবার এক চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসক মইনুদ্দিনের এক্স-রে করার পরামর্শ দেন। এক্স-রে করার পরে যে ছবি ধরা পড়ে তা দেখে কার্যত হতবাক হয়ে যান চিকিৎসক। তিনি জানিয়ে দেন, মইনুদ্দিনের পেটে রয়েছে অসংখ্য পেরেক। তাকে অস্ত্রোপচার ছাড়া বাঁচানো সম্ভব নয়। অস্ত্রোপচারের জন্য এক লক্ষ টাকা খরচ হবে।

কিন্তু, পরিবারে আর্থিক সমস্যার কারণে তাকে বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে নিয়ে যান পরিবারের সদস্যরা। বুধবার সকালের দিকে তাকে বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজে ভর্তি করা হয়। সেখানে আবার এক্স-রে করার পর রাতে তার অস্ত্রোপচার করেন চিকিৎসকরা। এরপর একে একে ২৫০ টি পেরেক, ৩৫ টি কয়েন এবং বেশ কিছু পাথরের টুকরো বের করতে সফল হন চিকিৎসকরা। ওই রোগী সুস্থ হয়েছেন বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকরা।

বন্ধ করুন