বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > মৃত চিকিৎসকের রেজিস্ট্রেশন নম্বর ‌ব্যবহার করে অ্যালোপ্যাথি চিকিৎসা, ধৃত ১
মৃত চিকিৎসকের রেজিস্ট্রেশন নম্বর ‌ব্যবহার করে ‘‌অলোপ্যাথি’‌ চিকিৎসা! ‌ধৃত ১:  প্রতীকী ছবি (‌সৌজন্য গেটি ইমেজেস)‌ (HT_PRINT)
মৃত চিকিৎসকের রেজিস্ট্রেশন নম্বর ‌ব্যবহার করে ‘‌অলোপ্যাথি’‌ চিকিৎসা! ‌ধৃত ১:  প্রতীকী ছবি (‌সৌজন্য গেটি ইমেজেস)‌ (HT_PRINT)

মৃত চিকিৎসকের রেজিস্ট্রেশন নম্বর ‌ব্যবহার করে অ্যালোপ্যাথি চিকিৎসা, ধৃত ১

হাওড়ায় ধৃত ভুয়ো চিকিৎসক

মৃত চিকিৎসকের রেজিস্ট্রেশন নম্বর ‌ব্যবহার করে দিব্যি ‘‌অ্যালোপ্যাথি’‌ চিকিৎসা চালাচ্ছিলেন ভুয়ো চিকিৎসক। বছরের পর বছর ধরে চিকিৎসা চালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে এই ভুয়ো চিকিৎসকের বিরুদ্ধে। স্থানীয়দের কাছে অভিযোগ পেয়ে গ্রেফতার করা হল ওই ভুয়ো চিকিৎসককে। হাওড়ার মল্লিক ফটক এলাকা থেকে অভিযুক্তকে গ্রেফতার করেছে সাঁতরাগাছি থানার পুলিশ। ঘটনায় শোরগোল পড়ে গিয়েছে গোটা এলাকায়।

রাজ্যজুড়ে নানা বিভাগের ভুয়ো সরকারি আধিকারিক সেজে নীল বাতির গাড়ি চড়ে প্রতারণার জাল বিছানোর ভুরি ভুরি অভিযোগে গ্রেফতারের লাইন পড়ে গিয়েছে। ভুয়ো আইপিএস অফিসার দেবাঞ্জন দেব কাণ্ড থেকে ঘটনাক্রম শুরু হয়েছিল। এবার তার মধ্যে সংযোজন হল ভুয়ো চিকিৎসকও।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃত অভিযুক্ত ওই চিকিৎসকের নাম সঞ্জয় কুমার। ধৃত ওই ব্যক্তি হাওড়ার মল্লিক ফটক এলাকার বাসিন্দা। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, গত সাত বছর ধরে মৃত চিকিৎসকের রেজিস্ট্রেশন নম্বর ব্যবহার করে আলোপ্যাথি চিকিৎসা করছিলেন সঞ্জয়। কয়েকজন এলাকাবাসীর কাছ থেকে এই খবর জানতে পারে পুলিশ। ঘটনার তদন্তে নেমে মঙ্গলবার রাতেই ওই চিকিৎসককে আটক করে পুলিশ। বুধবার তাকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, জেরায় অভিযুক্ত চিকিৎসক কোনও চিকিৎসা সংক্রান্ত ডিগ্রি কিম্বা রেজিস্ট্রেশনের কোনও নথি দেখাতে পারেননি। সেকারণে ধৃতের বিরুদ্ধে জামিন অযোগ্য ধারায় মামলা দায়ের করা হয়। এদিন ধৃতকে হেফাজতে নিতে তাকে হাওড়া আদালতে পেশ করেছে পুলিশ।

বন্ধ করুন