বাড়ি > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ফাদার্স ডে-র আগের দিন ছেলের হাতে বাবা খুন
প্রতীকি ছবি
প্রতীকি ছবি

ফাদার্স ডে-র আগের দিন ছেলের হাতে বাবা খুন

  • স্থানীয়রা জানিয়েছেন, মত্ত অবস্থায় প্রায়ই স্ত্রী ও ছেলেদের মারধর করতেন বিধানবাবু। শনিবার সন্ধ্যায় মত্ত অবস্থায় মদ খাওয়ার টাকা চেয়ে স্ত্রী চায়না ঘোষের ওপর অত্যাচার শুরু করেন তিনি।

ফাদার্স ডে-র আগের দিন মত্ত অবস্থায় মদ খাওয়ার টাকা চাইতে গিয়ে ছেলের হাতে খুন হলেন বাবা। মৃতের নাম বিধান ঘোষ। শনিবার বিকেলে বাঁকুড়ার সোনামুখি থানা এলাকার আড়ালকোণা গ্রামের ঘটনা।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, মত্ত অবস্থায় প্রায়ই স্ত্রী ও ছেলেদের মারধর করতেন বিধানবাবু। শনিবার সন্ধ্যায় মত্ত অবস্থায় মদ খাওয়ার টাকা চেয়ে স্ত্রী চায়না ঘোষের ওপর অত্যাচার শুরু করেন তিনি। বঁটি নিয়ে তেড়ে যান স্ত্রীর দিকে। সেই সময় ছেলে সঞ্জীব বাবাকে আটকাতে যায়। এরই মধ্যে ধস্তাধস্তিতে বিধান ঘোষের গলার নলি কেটে যায়। কিছুক্ষণের মধ্যেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন বিধানবাবু। 

চিৎকার শুনে ঘটনাস্থলে জড়ো হয়ে যান প্রতিবেশীরা। কিছুক্ষণের মধ্যে পৌঁছয় পুলিশও। তারা দেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়েছে। খুনের অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছে সঞ্জীব ঘোষ ও চায়না ঘোষকে। 

স্থানীয়দের যদিও দাবি, ইচ্ছাকৃত খুনের ঘটনা এটি নয়। মাকে বাঁচাতে গিয়েই দুর্ঘটনাবশতঃ গলায় কোপ লাগে বিধানবাবুর। সোনামুখি থানা একটি খুনের মামলা দায়ের করে তদন্ত শুরু করেছে। 

 

বন্ধ করুন