বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Mahishadal: প্রসাদ দিলেই হবে জরিমানা! মহিষাদলে 'একঘরে' ২ পরিবারকে গ্রাম কমিটির নামে ফতোয়া

Mahishadal: প্রসাদ দিলেই হবে জরিমানা! মহিষাদলে 'একঘরে' ২ পরিবারকে গ্রাম কমিটির নামে ফতোয়া

এই পোস্টারই পড়েছে গ্রামে।

পূর্ব মেদিনীপুরের মহিষাদল থানার রঙ্গীবসান গ্রামে এই পোস্টারকে ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। দুই পারিবারই এই পোস্টার দেওয়ার পিছনে রাজনৈতিক উদ্দেশ্য রয়েছে বলে জানিয়েছে।

গ্রামের দুই পরিবারকে শীতলা পুজোর অনুষ্ঠানে যাওয়া এবং প্রসাদ দেওয়া থেকে নিষিদ্ধ করে পোস্টার দেওয়ার অভিযোগ উঠল গ্রাম কমিটির বিরুদ্ধে। পূর্ব মেদিনীপুরের মহিষাদল থানার রঙ্গীবসান গ্রামে এই পোস্টারকে ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। দুই পারিবারই এই পোস্টার দেওয়ার পিছনে রাজনৈতিক উদ্দেশ্য রয়েছে বলে জানিয়েছে। পোস্টারকে কেন্দ্র করে শুরু হয়েছে রাজনৈতিক তরজাও।

পোস্টারে দাবি করা হয়েছে, 'রঙ্গীবসান উত্তর পল্লি কমিটির নির্দেশে গ্রামের দুই বাসিন্দা গুরুপদ বাড়ুই ও স্বরূপ ঘোড়ুইয়ের পরিবারকে একঘরে করা হয়েছে। এই দুই পরিবারের কারও গ্রামের মন্দিরে পুজো দেওয়া ও প্রসাদ পাওয়া নিষেধ। তবুও গ্রামের পুজোর ভোগ বিতরণের সময় ওই পরিবারের কাউকে প্রসাদ দেওয়া হলে বা কেউ নেমন্তন্ন করে খাওয়ালে তাঁকে জরিমানা বা বয়কট করা হবে'। রবিরার সকালে এই পোস্টার নজরে আসে গ্রামবাসীদের।

পোস্টারের উল্লেখিত স্বরূপ ঘড়াইয়ের স্ত্রী লক্ষ্মীরানি বলেন,'আমাদের সঙ্গে গ্রামের মোড়লদের জমি নিয়ে বিবাদ চলছে। আমরা বিজেপি করি। সে কারণে গত ৮ বছর ধরে আমাদের বয়কট করা রাখা হয়েছে। পোস্টার সেঁটে আমাদের চরম অসম্মান করা হল আজ।' শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তাঁরা এ নিয়ে পুলিশে কোনও অভিযোগ দায়ের করেননি, তবে পুলিশে যাবেন বলে জানিয়েছেন স্বরূপ ঘড়াই।

বিজেপির তমলুক সাংগঠিক জেলার সভাপতি তপন বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন,'মধ্যযুগীয় নিদান দিয়ে আজকের দিনেও বিজেপি করার অপরাধে দুটি পরিবারকে একঘরে করে রাখা হয়েছে। মহিষাদলে আগেও এই ভাবে একটি পরিবারকে একঘরে করে রাখা করা হয়েছিল। মানুষ এর বিচার চায়।'

তৃণমূলের দাবি পঞ্চায়েত ভোটের আগে এটা রাজনৈতিক গিমিক। তৃণমূল বিধায়ক তিলক চক্রবর্তী বলেন,'ভোট যত এগিয়ে আসবে এই ধরনের পোস্টার তত নজরে আসবে। কোনও পরিবারকে ৮ বছর ধরে বয়কট করা হল অথচ এবারই তাঁদের নামে পোস্টার পড়ল। এটা গ্রাম কমিটির কাজ নয়, বিজেপির ষড়যন্ত্র।' পুলিশ জানিয়েছে অভিযোগ পেলে তার ব্যবস্থা নেবে।

বন্ধ করুন