বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > খেজুরিতে তৃণমূল নেতাদের বাড়িতে NIA তল্লাশি, উদ্ধার আগ্নেয়াস্ত্র ও নগদ
খেজুরি বিস্ফোরণের পর ঘটনাস্থলের ছবি।

খেজুরিতে তৃণমূল নেতাদের বাড়িতে NIA তল্লাশি, উদ্ধার আগ্নেয়াস্ত্র ও নগদ

  • খেজুরি বিস্ফোরণকাণ্ডে ইতিমধ্যে একাধিক তৃণমূল নেতাকে গ্রেফতার করেছে NIA. এর মধ্যে রয়েছেন জনকা অঞ্চলের তৃণমূলের সভাপতি ও গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রাক্তন প্রধান সমরশংকর মণ্ডল।

পূর্ব মেদিনীপুরের খেজুরি বিস্ফোরণের তদন্তে তৃণমূল নেতার বাড়ি থেকে আগ্নেয়াস্ত্র ও প্রচুর নগদ উদ্ধার করল পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে একাধিক তৃণমূল নেতার বাড়িতে তল্লাশি চালান NIA-র গোয়েন্দারা। তাতেই উদ্ধার হয়েছে একটি আগ্নেয়াস্ত্র ও ২ লক্ষ ৬৩ হাজার নগদ। এর পরই তৃণমূলকে ফের আক্রমণ করেছে বিজেপি।

NIA সূত্রে খবর, বৃহস্পতিবার খেজুরিতে একাধিক ঠিকানায় হানা দেয় তারা। খেজুরি পঞ্চায়েত সমিতির কৃষি কর্মাধ্যক্ষ শ্যামল দাস ও তৃণমূল নেতা বাটুল জানার বাড়িতে অভিযান চলে। গোটা তল্লাশিতে ১টি আগ্নেয়াস্ত্র ও ২ লক্ষ ৬৩ হাজার টাকা উদ্ধার করেন তদন্তকারীরা।

খেজুরি বিস্ফোরণকাণ্ডে ইতিমধ্যে একাধিক তৃণমূল নেতাকে গ্রেফতার করেছে NIA. এর মধ্যে রয়েছেন জনকা অঞ্চলের তৃণমূলের সভাপতি ও গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রাক্তন প্রধান সমরশংকর মণ্ডল। সঙ্গে আরিফ বিল্লা ও শহিদুল আলি নামে আরও ২ জনকে গ্রেফতার করেন গোয়েন্দারা। এর পর ওড়িশা থেকে গ্রেফতার করা হয় ঘটনায় মূল অভিযুক্ত তৃণমূল নেতা রতন প্রামাণিক।

গত ৩ জানুয়ারি খেজুরিতে বিস্ফোরণে ২ জনের মৃত্যু হয়। প্রথমে সেটিকে গ্যাস সিলিন্ডার বিস্ফোরণ বলে দাবি করা হলেও পরে সেখানে বোমা বিস্ফোরণ হয়েছে বলে জানা যায়। এর পরই ঘটনার তদন্ত শুরু করে NIA. তদন্তে উঠে আসে, সমরশংকরের নির্দেশে বাইরে থেকে লোক এনে এক তৃণমূলকর্মীর বাড়িতে চলছিল বোমা বাঁধার কাজ।

 

বন্ধ করুন