নেই খদ্দের, তারপরও বিক্রির আশায় এক হালখাতা ব্যবসায়ী (ছবি সৌজন্য পিটিআই)
নেই খদ্দের, তারপরও বিক্রির আশায় এক হালখাতা ব্যবসায়ী (ছবি সৌজন্য পিটিআই)

স্বাগত ১৪২৭: নববর্ষে কখন করবেন হালখাতা পুজো, কখনই বা লিখবেন?

লকডাউনের জেরে প্রতিবার নববর্ষের সেই ছবিটা মিলবে না। তবে প্রথা মেনে হালখাতা লিখবেন বাঙালি ব্যবসায়ীরা।

বাংলা নববর্ষ মানেই লাল হিসেবের খাতা। এখন জৌলুস কিছুটা কমলেও লাল খাতার টান অটুট। তাই বছরের প্রথম দিনে অনেকেই এখনও নিয়ম মেনে নতুন খাতায় লেখেন। শুরু হয় ব্যবসায়ীদের পথ চলা।

আরও পড়ুন : স্বাগত ১৪২৭: 'শুভ নববর্ষ'-এর শুভেচ্ছাবার্তা পাঠান আপনার প্রিয়জনকে

তবে আর পাঁচটা বছরের চেয়ে এবারের বাংলা নববর্ষের প্রথম দিনটা একেবারেই আলাদাভাবে কাটতে চলেছে। অন্যবার যেমন সকাল সকাল বিভিন্ন মন্দিরে হালখাতা পুজোর ঢল পড়ে যায়, এবার লকডাউনের জেরে তা সম্ভবপর হবে না। ধর্মীয়স্থান বন্ধের ঘোষণা করা হয়েছে। ফলে অনেকে বাড়িতেই লক্ষ্মী-গণেশ ঠাকুরের পুজো করার পরিকল্পনা করেছেন। ছোটো করে নিজেরাই পুজো করবেন। তারপর প্রথামতো হালখাতা লিখবেন।

আরও পড়ুন :COVID-19 Updates: লকডাউনের ভবিষ্যৎ কী? আগামিকাল জাতির উদ্দেশে ভাষণে ঘোষণার সম্ভাবনা প্রধানমন্ত্রীর

কখন পুজো করবেন ও কখন হালখাতা লিখবেন, সেই নির্ঘণ্ট দেখে নিন -

পুজোর সময় : সারাদিনই পুজো করা যাবে। হালখাতা পুজোর আলাদা কোনও সময় নেই।

হালখাতা লেখার সময় : পঞ্জিকা অনুযায়ী অমৃতযোগে হালখাতা লেখা হয়। সেই সময় শুভকর্ম সম্পন্ন হয়। এবার নববর্ষে তিনটি সময় হালখাতা লেখা যাবে।

প্রথম সময় - সকাল ৮টা ৩৫ মিনিট থেকে সকাল ১০ টা ১০ মিনিট পর্যন্ত।

দ্বিতীয় সময় - দুপুর ৩টে ২৬ মিনিট থেকে বিকেল ৫টা ৮ মিনিট পর্যন্ত।

তৃতীয় সময় - রাত ৮টা ৫৮ মিনিট থেকে রাত ১১টা ১১ মিনিট পর্যন্ত।

আরও পড়ুন : 'সহজের জন্য বাড়িতে পয়লা বৈশাখ স্পেশ্যাল আইসক্রিম বানিয়েছি': প্রিয়াঙ্কা

বন্ধ করুন