বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > করোনার রোগীর ঝুলন্ত দেহ ঘাটালের হাসপাতালে, তদন্তে পুলিশ

পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার ঘাটাল মহকুমার কোভিড হাসপাতাল। সেই হাসপাতালের বন্ধ দরজার সামনে থেকে উদ্ধার  এক করোনা রোগীর ঝুলন্ত দেহ। গোটা ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকায়। পরে ঘাটাল থানার পুলিশ এসে দেহটি উদ্ধার করে। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃতের নাম শিবরাম ঘোষ। ৪৫ বছর বয়সী ওই ব্যক্তির বাড়ি চন্দ্রকোণা থানার পালংপুর গ্রামে। 

 

তাঁর পরিবার সূত্রে খবর, প্রায় ১৪ দিন আগে তিনি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন। কিছুটা সুস্থও হয়ে উঠেছিলেন তিনি। দিন তিনেক আগে তাঁকে ছুটিও দেওয়া হয় হাসপাতাল থেকে। কিন্তু তাঁর শ্বাসকষ্টের সমস্যা কমছিল না। সেকারণে তিনি হাসপাতালেই ছিলেন। মঙ্গলবার বিকালে পরিবারের লোকজনের সঙ্গে কথাবার্তাও হয়েছিল শিবরাম ঘোষের। কিন্তু এরপরই এদিন সকালে হাসপাতালের বন্ধ দরজার সামনে তাঁর দেহ উদ্ধারকে ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়ায়। মানসিক অবসাদে ওই ব্যক্তি আত্মহত্যা করেছেন কি না তা পুলিশ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রশ্ন উঠছে তবে কি রোগ যন্ত্রণা সহ্য করতে না পেরেই তিনি মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছিলেন? তার জেরেই কি তিনি আত্মহত্যার পথ বেছে নিলেন? কিন্তু এখানেই প্রশ্ন উঠছে হাসপাতালের ভেতর একজন রোগীর অস্বাভাবিক মৃত্যু হল, তার দায় কি এড়াতে পারে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ? হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের দাবি, ‘কোভিড হাসপাতালে এক রোগীর অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে। তার ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়েছে। কী কারণে তার মৃত্যু হয়েছে তার তদন্ত করছে পুলিশ। ’

 

বন্ধ করুন