বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > আস্ত শ্মশান গিলে খেল গঙ্গা, ভয়াবহ ভাঙন মুর্শিদাবাদে
মুর্শিদাবাদে, মালদায় গঙ্গার ভয়াবহ ভাঙন। ছবি : সংগৃহীত
মুর্শিদাবাদে, মালদায় গঙ্গার ভয়াবহ ভাঙন। ছবি : সংগৃহীত

আস্ত শ্মশান গিলে খেল গঙ্গা, ভয়াবহ ভাঙন মুর্শিদাবাদে

  • গ্রামবাসীরা ব্লক প্রশাসন, স্থানীয় বিধায়ক সহ বিভিন্ন মহলে এই ভাঙনের কথা জানিয়েছেন। কিন্তু তাতে কাজের কাজ কিছু হয়নি।

বৃষ্টি কমতেই এবার ভয়াবহ ভাঙন মুর্শিদাবাদে। একের পর এক জমি গিলে নিচ্ছে গঙ্গা। রবিবার সকালেও গঙ্গাগর্ভে তলিয়ে গেল আস্ত একটা শবদাহ ঘাট। স্থানীয় সূত্রে খবর, গত কয়েকদিন ধরেই এলাকায় ভাঙনের প্রবণতা বেড়েছিল। রবিবার সকাল ১০টা নাগাদ প্রতাপগঞ্জ- মহেশতলা শবদাহ ঘাটটি আচমকাই গঙ্গাগর্ভে তলিয়ে যায়। বাসিন্দারা জানিয়েছেন, ভাঙন রোধে বালির বস্তাও ফেলা হয়েছিল। কিন্তু তা সত্ত্বেও ভাঙন রোধ করা যায়নি। আচমকাই গঙ্গা গর্ভে তলিয়ে যায় শবদাহ ঘাটের একাংশ। স্থানীয় প্রায় ১৫টি গ্রামের মানুষ এই শবদাহ ঘাটের উপর নির্ভরশীল। দিন কয়েক ধরেই গঙ্গার জলস্তর কিছুটা কমছিল। এর সঙ্গে পার্শ্ববর্তী এলাকায় জমিতে ফাটল দেখা দিয়েছিল। এদিন আচমকাই হুড়মুড়িয়ে ভেঙে গেল শবদাহ ঘাট।

 এদিকে গঙ্গার এই ভয়াবহ ভাঙনের জেরে এলাকায় ব্যাপক আতঙ্ক ছড়িয়েছে। এক বাসিন্দা জানিয়েছেন, প্রাচীন মন্দিরগুলিও জলের তলায় চলে গিয়েছে। সব সময় ভয় লাগছে এই বোধ হয় বাড়িটাও নদীর গর্ভে তলিয়ে গেল। শ্মশানঘাটটাও জলের তলায় চলে গিয়েছে। এদিকে গ্রামবাসীরা ব্লক প্রশাসন, স্থানীয় বিধায়ক সহ বিভিন্ন মহলে এই ভাঙনের কথা জানিয়েছেন। কিন্তু তাতে কাজের কাজ কিছু হয়নি। ভাঙন রোধে যে অস্থায়ী ব্যবস্থা করা হয়েছে তা যথেষ্ট নয়। এর জেরে গঙ্গার প্রবল টানে ভেসে যাচ্ছে সব কিছুই। এদিকে মুর্শিদাবাদের সামসেরগঞ্জেও গঙ্গার ভয়াবহ ভাঙন দেখা দিয়েছে। ধুলিয়ান পুর এলাকায় ১৭ ও ১৮ নম্বর ওয়ার্ডে মাস খানের ধরে এই ভাঙনের আতঙ্কে ভুগছেন বাসিন্দারা। মালদাতেও বাড়ছে ভাঙনের আতঙ্ক। 

 

বন্ধ করুন