বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > দলে কর্মীদের বঞ্চনা নিয়ে বিস্ফোরক বেচারাম মান্না, পাল্টা দিলেন দিলীপ যাদব
হরিপালের তৃণমূল বিধায়ক বেচারাম মান্না। ফাইল ছবি
হরিপালের তৃণমূল বিধায়ক বেচারাম মান্না। ফাইল ছবি

দলে কর্মীদের বঞ্চনা নিয়ে বিস্ফোরক বেচারাম মান্না, পাল্টা দিলেন দিলীপ যাদব

  • বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল, দিনহাটার বিধায়ক উদয়ন গুহর মতো বেফঁাস মন্তব্য করে এবার বিতর্কে ‌জড়িয়ে পড়লেন হরিপালের তৃণমূল বিধায়ক বেচারাম মান্না।

দলের মধ্যে যে কোন্দল রয়েছে, তা তৃণমূলের তাবড় তাবড় নেতারাই বুঝিয়ে দিচ্ছেন। বীরভূম জেলা তৃণমূল সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল, দিনহাটার বিধায়ক উদয়ন গুহর মতো বেফঁাস মন্তব্য করে এবার বিতর্কে ‌জড়িয়ে পড়লেন হরিপালের তৃণমূল বিধায়ক বেচারাম মান্না।

রবিবার হুগলির উত্তরপাড়ায় এক কর্মিসভায় যোগ দিয়ে দলেরই একাংশের প্রতি ক্ষোভ প্রকাশ করেন তৃণমূল নেতা বেচারাম মান্না। তিনি এদিন বলেন, ‘‌পার্টি থেকেই কেউ করে খায়, কিন্তু ওই একই ব্যক্তি কর্মীদের যদি বঞ্চিত করে, তা হলে কর্মীরাই তাকে ঘাড় ধাক্কা দিয়ে দল থেকে বের করে দেবে। সেই পরিবেশ হুগলি জেলায় তৈরি হচ্ছে। এটা আপনারা জেনে রাখুন।’‌ এত বছর দল করার অভিজ্ঞতার প্রসঙ্গ টেনে নিয়ে বেচারাম বলেন, ‘‌আমরা কর্মীদের মধ্যে থেকে উঠে এসেছি। তাই কর্মীদের জ্বালা, যন্ত্রণা— সব কিছু বুঝি। যাঁরা কর্মীদের কথা গ্রাহ্য করে না, তাঁদের কোনও গুরুত্ব দেয় না, তাঁদের সঙ্গে ৬০০ জন নয়, ৬০ জনও থাকবে না।’‌

দলের অন্দরে অধিকাংশের মতে, এদিন বিধায়ক বেচারাম মান্না তাঁর বক্তব্যে মূলত হুগলির জেরা তৃণমূল সভাপতি দিলীপ যাদবকে আক্রমণ করেছেন। যদিও সে সব কথা কানে তুলতে নারাজ দিলীপ। তিনি এদিন বলেন, ‘‌দলকে যতটা শক্তিশালী করা যায়, দলের নির্দেশে সারাদিন সেই চেষ্টাই করি। কে কী বলেছেন এটা আমার বিষয় নয়। আমার একটাই দায়িত্ব, দলের শীর্ষ নেতৃত্বের নির্দেশে সারাদিন কাজ করা। এটাই আমি করি। আমার দ্বারা যদি কোনও ভুল হয়, দল বললে তা সঙ্গে সঙ্গে শুধরে নেব।’‌

বন্ধ করুন