বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > স্ত্রীয়ের যৌনাঙ্গে খৈনি ঢুকিয়ে দিল স্বামী, নির্মম অত্যাচার করে পলাতক অভিযুক্ত
স্ত্রীকে মারধর করে স্বামী। ছবি প্রতীকী।
স্ত্রীকে মারধর করে স্বামী। ছবি প্রতীকী।

স্ত্রীয়ের যৌনাঙ্গে খৈনি ঢুকিয়ে দিল স্বামী, নির্মম অত্যাচার করে পলাতক অভিযুক্ত

  • তার জেরে রাতভর স্ত্রীকে উলঙ্গ করে মারধর করে স্বামী।

বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কের নির্মম পরিণতি দেখল বাংলা। একের পর এক বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্কে জড়িয়েছেন স্বামী। সম্প্রতি তাদের মধ্যে একজনকে বিয়েও করে ফেলেছেন। আর এই দ্বিতীয় বিয়েতে আপত্তি তুলেছে প্রথমপক্ষ। তার জেরে রাতভর স্ত্রীকে উলঙ্গ করে মারধর করে স্বামী। এমনকী যৌনাঙ্গে খৈনি ঢুকিয়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠল স্বামীর বিরুদ্ধে। নির্মম ঘটনাটি ঘটেছে জলপাইগুড়ির ময়নাগুড়িতে। বীভৎস এই গার্হস্থ হিংসার ঘটনা ঘটেছে ময়নাগুড়ির আমগুড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের ধাই–ধাই ঘাট এলাকায়। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত পলাতক।

এই এলাকার বাসিন্দা বীরেন তফাদার। তিনি একজন নয়, বিভিন্ন এলাকার একাধিক মহিলার সঙ্গে বিবাহ–বর্হিভূত সম্পর্কে লিপ্ত ছিলেন বলে অভিযোগ। স্ত্রীর অভিযোগ, সম্প্রতি আরও একটি সম্পর্ক জড়িয়েছিল স্বামী। তার জেরে এলাকার লোকেরা তাকে মারধর করে এবং সেই মহিলার সঙ্গে বিয়ে দিয়ে দেয়। তাতেই ফাঁপরে পড়েন বীরেন। বাড়িতে প্রথম পক্ষের স্ত্রী থাকার পরেও নতুন স্ত্রীকে নিয়ে ঘরে ওঠেন তিনি। এই নিয়ে প্রথম স্ত্রীর প্রতিবাদ করলে শুরু হয় অশান্তি। অভিযোগ, এরপর স্বামী তাঁকে বিবস্ত্র করে মারধর করেন। তারপর তাঁর যৌনাঙ্গে খৈনি ঢুকিয়ে দেয় বলে স্ত্রী রুনু তফাদারের দাবি।

অভিযোগ, মঙ্গলবার দুপুর থেকে রাত পর্যন্ত ঘরে আটকে রেখে স্ত্রীকে পৈশাচিক অত্যাচার চালান বীরেন। স্ত্রীয়ের যৌনাঙ্গে খৈনির পাতা ঢুকিয়ে দিয়ে রাতভর অত্যাচার চালানোর অভিযোগ উঠেছে। সকালে স্বামী প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে ঘর থেকে বেরোলে, কোনওমতে জানালা দিয়ে পালান রুনু। ময়নাগুড়ি থানায় অভিযোগও দায়ের করেছেন তিনি। শাশুড়ি সন্ধ্যা সেনগুপ্তের অভিযোগ, মেয়েকে প্রায়ই মারধর ও শারীরিক নির্যাতন করত জামাই। তার উপযুক্ত শাস্তির দাবি করেন তিনি।

বন্ধ করুন