বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > যশবন্তকেই ভোট দেব, রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে বললেন দিব্যেন্দু অধিকারী
দিব্যেন্দু অধিকারী। ফাইল ছবি

যশবন্তকেই ভোট দেব, রাষ্ট্রপতি নির্বাচন নিয়ে বললেন দিব্যেন্দু অধিকারী

  • এদিন দিব্যেন্দুবাবু সংবাদমাধ্যমকে জানান, ‘আমি দিল্লিতে ভোট দেব। আমাকে দলের তরফে বিধানসভায় ভোট দেওয়ার ব্যাপারে কিছু জানানো হয়নি। এব্যাপারে অন্তত ১০ দিন আগে নির্বাচন কমিশনকে জানাতে হয়। ফলে আমার ভোটদানের স্থান বদল আর সম্ভব নয়।

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে কাঁথির অধিকারীবাড়ির ২ সাংসদ কাকে ভোট দেবেন? দলের নির্দেশ মেনে কি ভোট দেবেন NDA-র প্রার্থীকে। না কি তাঁদের ভোট পড়বে NDA-র প্রার্থী দৌপদী মুর্মুর পক্ষে? এই নিয়ে জল্পনার মধ্যেই নিজের অবস্থান পরিষ্কার করলেন তমলুকের সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারী। জানালেন, দিল্লি গিয়ে যশবন্ত সিনহাকেই ভোট দেবেন তিনি।

এদিন দিব্যেন্দুবাবু সংবাদমাধ্যমকে জানান, ‘আমি দিল্লিতে ভোট দেব। আমাকে দলের তরফে বিধানসভায় ভোট দেওয়ার ব্যাপারে কিছু জানানো হয়নি। এব্যাপারে অন্তত ১০ দিন আগে নির্বাচন কমিশনকে জানাতে হয়। ফলে আমার ভোটদানের স্থান বদল আর সম্ভব নয়। আমি দিল্লিতে গোপন ব্যালটে NDA প্রার্থী যশবন্ত সিনহাকেই ভোট দেব।’ তবে বাবা শিশির অধিকারীর অবস্থান স্পষ্ট করেননি তিনি। দিব্যেন্দুবাবু বলেন, ‘বাবার বয়স ৮৩ বছর। উনি গিয়ে ভোট দিতে পারবেন কি না জানি না। চিকিৎসকের পরামর্শ মতো সিদ্ধান্ত নেব।’

শুক্রবার দিব্যেন্দুবাবুকে চ্যালেঞ্জ করে তৃণমূলের এক মুখপাত্র টুউটারে লেখেন, এক সাংসদ লিখেছেন তিনি যশবন্ত সিনহাকে ভোট দেবেন। সত্যিই যশবন্ত সিনহাকে ভোট দিলে উনি বিধানসভায় চলে আসুন। তৃণমূল সাংসদ বিধায়কদের সঙ্গে ভোট দিন। তবে ওই মুখপাত্রের মন্তব্যের কোনও প্রতিক্রিয়া দেননি দিব্যেন্দু।

বলে রাখি, রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোট হয় গোপন ব্যালটে। এই নির্বাচনে হুইপ জারি করতে পারে না কোনও দল। ফলে দলের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে ভোট দিলেও পদক্ষেপ করার সুযোগ থাকে না। ১৮ জুলাই রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের ভোটগ্রহণ।

 

বন্ধ করুন