বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > লাশ কোথায়? তবুও আতঙ্ক কাটে না, মাথায় হাত মালদার মৎস্যজীবীদের
কোথায় লাশ? উদ্বেগ রয়েছে এখনও (প্রতীকী ছবি)
কোথায় লাশ? উদ্বেগ রয়েছে এখনও (প্রতীকী ছবি)

লাশ কোথায়? তবুও আতঙ্ক কাটে না, মাথায় হাত মালদার মৎস্যজীবীদের

  • মাছ ধরেই দিন গুজরান। কিন্তু সেই মৎস্যজীবীদের মাথায় আকাশ ভেঙে পড়ার জোগাড়। কোনওভাবেই গুজব ছড়াবেন না, আবেদন প্রশাসনের

একে তো করোনার আতঙ্ক। তার দোসর হয়েছে ব্ল্য়াক ফাঙ্গাস। কিন্তু তার চেয়েও বড় উদ্বেগ গ্রাস করেছে মালদার মৎস্যজীবীদের। বিপাকে পড়েছেন মাছ বিক্রেতারা। তাঁদের একাংশের দাবি, বিহারে করোনায় মৃতদের লাশ ভেসে আসতে পারে মালদার গঙ্গায়, এই বার্তায় একেবারে হইহই পড়ে গিয়েছে এলাকায়। গঙ্গাপাড়ে পুলিশের টহলদারিও বেড়েছে গত কয়েকদিন ধরে। এদিকে বাসিন্দাদের দাবি সামগ্রিক পরিস্থিতিতে গঙ্গায় স্নান ও গঙ্গার জল খাওয়ার ক্ষেত্রে সতর্ক করে সম্প্রতি মানিকচক এলাকায় মাইকিং করা হয়েছিল। আর তারপর থেকেই গঙ্গার মাছ আর মুখে তুলতে চাইছেন না অনেকেই। মাছের বাজারেও সেই পরিচিত ভিড় আচমকাই উধাও। দাম কমিয়ে দিয়েও মাছ বিক্রি করতে পারছেন না  অনেকেই। কিন্তু আদৌ কি এই উদ্বেগের কোনও বাস্তবিক ভিত্তি আছে?

মৎস্যজীবীদের একাংশের মতে, গঙ্গার দিকে তাকিয়ে থেকে ক্লান্ত। তবুও লাশের দেখা মেলেনি। করোনায় মৃতের লাশ ভাসছে বলে কোথাও কোনও নিশ্চয়তাও নেই। তারপরেও কেন নানা কথা রটানো হচ্ছে? এর জেরে সাধারণ মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়াচ্ছে। অনেকেরই রান্নাঘর পর্যন্ত গিয়েছে সেই আতঙ্কের রেশ। তবে মৎস্য়জীবীদের একাংশের মতে, লাশ কোথাও ভাসলে তা বক্সার এলাকায় আটকে যাবে। তবুও সতর্ক থাকা দরকার। কিন্তু কোনওভাবেই গুজব ছড়ানো উচিৎ নয়। প্রশাসনও সূত্রে খবর কোনওভাবেই গুজব ছড়ানোর চেষ্টা হলে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

 

বন্ধ করুন