বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Kolkata-Mumbai Highway Blocked: অবরুদ্ধ কলকাতা-মুম্বই জাতীয় সড়ক, বাতিল ২৮টি ট্রেন, চরম ভোগান্তি আম জনতার

Kolkata-Mumbai Highway Blocked: অবরুদ্ধ কলকাতা-মুম্বই জাতীয় সড়ক, বাতিল ২৮টি ট্রেন, চরম ভোগান্তি আম জনতার

অবরুদ্ধ কলকাতা-মুম্বই জাতীয় সড়ক, প্রতিবাদীদের বিক্ষোভে ভোগান্তি আম জনতার

গত ১ এপ্রিল থেকে জঙ্গলমহলে ‘ঘাঘর ঘেরা’ নামের অবরোধ কর্মসূচি শুরু করেছে কুড়মি সমাজ। তাদের দাবি, কুড়মিদের এসটি তালিকাভুক্ত করতে হবে। কুড়মালি ভাষাকেও স্বীকৃতি দেওয়ার দাবি উঠেছে। এছাড়াও রাজ্যের তরফে কেন্দ্রের কাছে অবিলম্বে কালচারাল রিসার্চ ইনস্টিটিউট রিপোর্ট পাঠানোর দাবি জানিয়েছে কুড়মি সমাজ।

পশ্চিম মেদিনীপুরের খেমাশুলিতে কলকাতা-মুম্বই জাতীয় সড়ক অবরোধ করল কুড়মি সমাজ। গত ১ এপ্রিল থেকে জঙ্গলমহলে ‘ঘাঘর ঘেরা’ নামের অবরোধ কর্মসূচি শুরু করেছে কুড়মি সমাজ। তাদের দাবি, কুড়মিদের এসটি তালিকাভুক্ত করতে হবে। কুড়মালি ভাষাকেও স্বীকৃতি দেওয়ার দাবি উঠেছে। এছাড়াও রাজ্যের তরফে কেন্দ্রের কাছে অবিলম্বে কালচারাল রিসার্চ ইনস্টিটিউট রিপোর্ট পাঠানোর দাবি জানিয়েছে কুড়মি সমাজ। এই আবহে মঙ্গলবার ১৬ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করা হয়েছিল। এরপর আজ, বুধবারও অবরোধ জারি রয়েছে। বুধবার ভোর থেকে পুরুলিয়ার কুস্তাউরে রেল ও ৫ নং রাজ্য সড়ক অবরোধ করে রেখেছেন কুড়মি সমাজ। অনির্দিষ্ট কালের জন্য এই অবরোধ শুরু করেছেন তারা। (আরও পড়ুন: রাজ্য সরকারের ডিএ বঞ্চনার কথা কেন্দ্রকে জানাতে দিল্লি যাচ্ছেন ১২০০ সরকারি কর্মী)

এর আগে গত রবিবার খড়গপুরের চামরুসাইতে খড়গপুর-কেশিয়াড়ি রাজ্য সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখিয়েছিলেন কুড়মিরা। কুড়মি সমাজের রাজ্য সভাপতি রাজেশ মাহাতোর হুঁশিয়ারি, তাদের সব দাবি না মানা হলে অনির্দিষ্টকালের জন্য জাতীয় সড়ক অবরোধ করে বসে থাকবেন তারা। কুড়মি সমাজের অভিযোগ, বার বার প্রতিশ্রুতি দেওয়া হলেও, কথা রাখেনি রাজ্য সরকার। তাই নিজেদের দাবি আদায়ের জন্য অবরোধ কর্মসূচি পালন করে সরকারের ওপর চাপ সৃষ্টির পথ অবলম্বন করেছে তারা।

আরও পড়ুন: এপ্রিলে টানা দু'দিনের প্রশাসনিক ধর্মঘট করবেন ডিএ আন্দোলনকারীরা, কবে হবে এই বনধ?

এদিকে আদিবাসী কুড়মি সমাজের জেলা সম্পাদক সাধন মাহাতো এই নিয়ে সংবাদমাধ্যমকে বলেন, 'আজকে পথ ও ট্রেন অবরোধ শুরু করলাম। রাজ্য সরকার সিআরআই রিপোর্ট পাঠানোর নামে আমাদের সঙ্গে ভেলকিবাজি করছে। এই ছলনার বিরুদ্ধে আমরা পথে নেমেছি আজ। এর আগেও পথে নেমেছিলাম আমরা। আমাদের দাবি, কুড়মি জাতিকে এসটি তালিকার অন্তর্ভূক্ত করতে হবে। কুড়মালি ভাষাকে অষ্টম তফশিলি ভাষার তালিকায় অন্তর্ভূক্ত করতে হবে। সারনা ধর্ম চালু করতে হবে।'

এদিকে এই অবরোধের জেরে রেলের তরফ থেকে পুরুলিয়ার আদ্রা শাখায় যাবতীয় ট্রেন বাতিল করার কথা ঘোষণা করা হয়েছে। আজ মোট ২৮টি ট্রেন বাতিল করা হয়েছে আদ্রা শাখায়। বাতিলের তালিকায় আছে জনশতাব্দী এক্সপ্রেস, স্টিল এক্সপ্রেস। এছাড়াও বাতিল হয়েছে পুরুলিয়া হাওড়া এক্সপ্রেস, দানাপুর টাটা এক্সপ্রেস, হাতিয়া খড়গপুর এক্সপ্রেস সহ একাধিক এক্সপ্রেস এবং মেমু স্পেশাল ট্রেন। ঘুরিয়ে দেওয়া হয়েছে বেশ কিছু ট্রেনের যাত্রাপথ।

 

বন্ধ করুন