বাড়ি > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ফেসবুকে ভিডিয়ো দিয়ে নদিয়ায় আত্মহত্যার চেষ্টা যুবকের, রুখল কলকাতা পুলিশ
ফেসবুকে ভিডিয়ো দিয়ে নদিয়ায় আত্মহত্যার চেষ্টা, রুখল কলকাতা পুলিশ (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)
ফেসবুকে ভিডিয়ো দিয়ে নদিয়ায় আত্মহত্যার চেষ্টা, রুখল কলকাতা পুলিশ (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)

ফেসবুকে ভিডিয়ো দিয়ে নদিয়ায় আত্মহত্যার চেষ্টা যুবকের, রুখল কলকাতা পুলিশ

  • কলকাতা পুলিশের তৎপরতার প্রাণ বাঁচল যুবকের।

ফেসবুকে আত্মহত্যার চেষ্টার ভিডিয়ো আপলোড করেছিল এক যুবক। ফেসবুক কর্তৃপক্ষের তরফে সেই খবর পেয়ে আত্মহত্যা রুখে দিল কলকাতা পুলিশ।

রবিবার রাতে ফেসবুকের থেকে আত্মহত্যার চেষ্টার খবর দেওয়া হয়েছিল। দ্রুত তৎপর হয় পুলিশ। ফেসবুকের সূত্র ধরেই বছর ২৪-এর ওই যুবকের খোঁজ করতে থাকেন পুলিশ আধিকারিকরা। জানা যায়, নদিয়ার এক যুবক সেই ভিডিয়োটি আপলোড করেছেন। যা কলকাতা থেকে ১০০ কিলোমিটার দূরে।

কলকাতা পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগের এক শীর্ষ কর্তা বলেন, ‘(ফেসবুকে) প্রোফাইল তৈরির সময় যে ফোন নম্বর ব্যবহার করা হয়েছিল, তা খুঁজে বের করি আমরা। সেটি নদিয়ার ফোন নম্বর বলে জানা যায়। আমরা দ্রুত ওই নম্বর ব্যবহারকারীর সঙ্গে যোগাযোগ করি। জানা যায়, ওই নম্বরটি একজন ব্যক্তির। যাঁর ছেলে ভিডিয়ো আপলোড করেছেন।’

ওই ব্যক্তিকে ভিডিয়োর বিষয়ে জানায় পুলিশ। তিনি দ্রুত ছেলের ঘরে গিয়ে দেখেন, যুবক হাতের শিরা কেটেছেন। তারইমধ্যে কলকাতা পুলিশের তরফে স্থানীয় কোতোয়ালি থানায় খবর দেওয়া হয়। সেই খবর পেয়ে দ্রুত যুবকের বাড়িতে পৌঁছায় পুলিশ। রক্তাক্ত অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভরতি করা হয়। চিকিৎসার পর তাঁকে হাসপাতাল ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

লালবাজারের ওই পুলিশ কর্তা বলেছেন, ‘যুবকের বাবা পরে জানিয়েছেন, তাঁর ছেলে রাজ্যের বাইরে কাজ করতেন এবং (করোনাভাইরাস) মহামারীর সময় ফিরে আসেন। নদিয়ার একটি দোকানে কাজ পান তিনি। কিন্তু বেতন অত্যন্ত কম হওয়ায় যুবক অবসাদে ভুগছিলেন।’

বন্ধ করুন