বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Kunal Ghosh: ‘বিরবাহার কাছে ক্ষমা চান না হলে ওঁর জুতো পালিশ করাব’, শুভেন্দুকে তোপ কুণালের

Kunal Ghosh: ‘বিরবাহার কাছে ক্ষমা চান না হলে ওঁর জুতো পালিশ করাব’, শুভেন্দুকে তোপ কুণালের

পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশিয়ারির নছিপুরে কুণাল ঘোষ (টুইটার)

রবিবার পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশিয়ারির নছিপুরে এক সভামঞ্চ থেকে শুভেন্দুকে আক্রমণ করেন কুণাল ঘোষ।

কুকথা নিয়ে রাজনৈতিক তরজা অব্যাহত। এবার, রাজ্যের মন্ত্রী বিরবাহা হাঁসদা সম্পর্কে‘কুরুচিকর’ মন্তব্যের জন্য ক্ষমা না চাইলে তাঁকে দিয়ে জুতো পালিশ করার হুঁশিয়ারি দিলেন তৃণমূল মুখপাত্র কুণাল ঘোষ। যদিও তাঁর এই হুঁশিয়ারিকে গুরুত্ব দিচ্ছে বিজেপি।

রবিবার পশ্চিম মেদিনীপুরের কেশিয়ারির নছিপুরে এক সভামঞ্চ থেকে শুভেন্দুকে আক্রমণ করেন কুণাল ঘোষ। তিনি বলেন,‘আখিলবাবু যা বলেছেন তার জন্য দল ভুল স্বীকার করেছে। ক্ষমা চেয়েছে। খোদ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও অখিল গিরির মন্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে ক্ষমা চেয়েছেন।’ তার পরই বিরোধী দলনেতার উদ্দেশ্যে তোপ দেগে বলেন,‘কিন্তু বিরবাহা সম্পর্কে শুভেন্দু অধিকারী যে মন্তব্য করেছেন, তার জন্য উনি এখনও ক্ষমা চাননি। যদি না চান ওঁকে দিয়ে বিরবাহার জুতো পালিশ করিয়ে ছাড়াব।’

রাষ্ট্রপতি সম্পর্কে মন্ত্রী অখিল গিরির‘কুকথা’য় জেরে অস্বস্তিতে পড়ে শাসকদল। খোদ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিয়ে এই মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চান। পাশাপাশি বিরবাহা হাঁসদাকে নিয়ে বিরোধী দলনেতার একটি মন্তব্যের বিরুদ্ধেও সরব হন তিনি। তৃণমূলের পক্ষ থেকে শুভেন্দুর এই মন্তব্য সম্বলিত একটি ভিডিয়ো প্রকাশ করা হয়। দাবি ওঠে বিরোধী দলনেতাকে ওই মন্তব্যের জন্য ক্ষমা চাইতে হবে। যদিও শাসক দলের এই অভিযোগ অস্বীকার করেন শুভেন্দু।

কুণালের এই মন্তব্যের প্রেক্ষিতে বিজেপির জেলা সহ-সভাপতি অরূপ দাস বলেন,‘ওঁর সম্পর্কে মানুষ জানেন। ওঁর কথায় কিছু আসে যায় না। শুভেন্দু অধিকারী এখন তৃণমূলের আতঙ্কের কারণ হয়ে গিয়েছে। তাই বারবার তাঁরা এই সব কথা বলছে।’

বন্ধ করুন