বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > বাংলায় বাড়তে চলেছে মদের দাম, মাথায় হাত সুরাপ্রেমীদের
বাংলায় বাড়তে চলেছে মদের দাম, মাথায় হাত সুরাপ্রেমীদের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)
বাংলায় বাড়তে চলেছে মদের দাম, মাথায় হাত সুরাপ্রেমীদের (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য রয়টার্স)

বাংলায় বাড়তে চলেছে মদের দাম, মাথায় হাত সুরাপ্রেমীদের

  • এক্ষেত্রে ২২টি ধাপে হবে নতুন দাম নির্ধারণ করা হচ্ছে বলে সূত্রের খবর। রাজ্যে বাড়তে চলেছে বিদেশি মদের দাম।

মদের দামে বড়সড় রদবদল হচ্ছে রাজ্যে। এক্ষেত্রে ২২টি ধাপে হবে নতুন দাম নির্ধারণ করা হচ্ছে বলে সূত্রের খবর। রাজ্যে বাড়তে চলেছে বিদেশি মদের দাম। রাজ্য সরকারের পক্ষ থেকে মদের মূল্য বিন্যাস করা হয়েছে নতুন করে। এপ্রিলের দ্বিতীয় সপ্তাহেই মদের ওপরে ৩০ শতাংশ কর চাপিয়েছিল রাজ্য সরকার। কিন্তু তার ফলে রাজ্যে মদ ও বিয়ারের বিক্রি লকডাউনের আগের তুলনায় ৪০ শতাংশ কমে গিয়েছিল বলে দাবি করেছিলেন কনফেডারেশন অব ইন্ডিয়ান অ্যালকোহলিক বেভারেজ কোম্পানিসের অধিকর্তা বিনোদ গিরি।

তবে দোকানে পুরনো মদের স্টক থাকলে, তা পুরনো দামেই বিক্রি করা হবে বলে জানানো হয়েছে। রাজ্য সরকার নতুন হারে যে দাম নির্ধারণ করেছে, তাতে ভারতে উৎপাদিত মদের দাম বাড়বে ২৫ থেকে ৩০ শতাংশ। পশ্চিমবঙ্গের মদ বিক্রেতা কনফেডারেশনের মতে, অগস্ট থেকে অক্টোবর পর্যন্ত মদের বিক্রি উর্ধ্বমুখী থাকে। এবার ৩৫ শতাংশ কম মদ বিক্রি হয়েছে। বিনোদ গিরি সংবাদমাধ্যমে জানান, বিষয়টি নিয়ে কনফেডারেশনের প্রতিনিধিরা রাজ্য অর্থসচিব ও শুল্কসচিবের সঙ্গে দেখা করে মদের দাম বিবেচনা করার অনুরোধ জানাবেন।

দাম বেড়ে যাওয়ার ফলে এবার মদ বিক্রির পরিমাণ আরও কমবে বলে মনে করা হচ্ছে। রাজ্যে উৎপাদিত বিদেশি মদ বিক্রি হয় ১ কোটি ৪০ লাখ ক্রেট ও বিয়ার আশি লাখ ক্রেট। তবে লকডাউন চলাকালীন প্রায় ৪০ দিন পর মদের দোকান খুলে যায় দেশের অধিকাংশ রাজ্যে৷ পশ্চিমবঙ্গেও স্ট্যান্ড অ্যালোন লিকার শপে শুরু হয় মদ বিক্রি৷ তাতেই একদিনে রাজ্যের লাভ ৪০ কোটি টাকা হয় বলে সূত্রের খবর৷

সংবাদমাধ্যম সূত্রে খবর, কলকাতার এক নামী মদ বিক্রেতা সংস্থার দাবি, সরকার ৩০ শতাংশ কর চাপিয়ে ২২টি ধাপে নতুন দাম স্থির করেছে। তার ফলে বেশ কয়েকটি দামী মদের দাম আরও বাড়তে চলেছে। ফলে মানুষজন দেশীয় মদের দিকে ঝুঁকতে পারেন। রাজ্য সরকার জানায় সোমবার থেকে নির্দিষ্ট সময়ের জন্য খোলা থাকবে শহরের মদের দোকানগুলি৷

বন্ধ করুন