বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > 'দেউচার মানুষজনকে ভয় দেখিয়ে রেখেছে সরকার'- এলাকা পরিদর্শন করে দাবি নওশাদের
মঙ্গলবার দেউচা পরিদর্শন করলেন আইএসএফ বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকী। নিজস্ব ছবি।
মঙ্গলবার দেউচা পরিদর্শন করলেন আইএসএফ বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকী। নিজস্ব ছবি।

'দেউচার মানুষজনকে ভয় দেখিয়ে রেখেছে সরকার'- এলাকা পরিদর্শন করে দাবি নওশাদের

  • মঙ্গলবার দেউচা এলাকা ঘুরে সেখানকার মানুষদের রাজ্য সরকার ভয় দেখাচ্ছে বলে অভিযোগ তুললেন ভাঙড়ের আইএসএফ বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকী।

বীরভূমে প্রস্তাবিত দেউচা কয়লা খনি প্রকল্প নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই চাপানউতোর চলছে। এ নিয়ে ইতিমধ্যেই রাজনৈতিক জলঘোলা শুরু হয়েছে। বিজেপি ইতিমধ্যেই দেউচা প্রকল্প নিয়ে নানাভাবে রাজ্যকে খোঁচা দিয়েছে। তারই মধ্যে মঙ্গলবার দেউচা এলাকা ঘুরে সেখানকার মানুষদের রাজ্য সরকার ভয় দেখাচ্ছে বলে অভিযোগ তুললেন ভাঙড়ের আইএসএফ বিধায়ক নওশাদ সিদ্দিকী।

এলাকা পরিদর্শনের পর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, ' আমি এলাকার মানুষদের সঙ্গে কথা বলেছি। তারা ভীত-সন্ত্রস্ত হয়ে রয়েছেন। অনেকেই ভয়ে কথা বলতে চাইছেন না। রাজ্য সরকার তাদের শাসিয়ে, ভয় দেখিয়ে রেখেছেন। স্থানীয়রা ভয়ে কেউ কিছু বলতে চাইছে না।'

প্রসঙ্গত, মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় দেউচা এলাকায় আদিবাসীদের জন্য ১০ হাজার কোটি টাকার প্যাকেজ ঘোষণা করেছেন। রাজ্য সরকার মনে করছে, এই অঞ্চলে কয়লা খনি করা সম্ভব হলে আগামী দিনে রাজ্যের আর্থিক পরিকাঠামো আরও মজবুত হবে। তবে আদিবাসী সম্প্রদায়ের একটা বড় অংশ নিজেদের জমি ছাড়তে চাইছেন না। মুখ্যমন্ত্রী আগেই জানিয়েছিলেন সর্বসম্মতিক্রমে দেউচা কয়লা খনি প্রকল্প শুরু করা হবে। ফলে আদিবাসীদের একাংশ তাতে সম্মতি না দেওয়ায় সেই প্রকল্পের কাজ আপাতত আটকে রয়েছে।

এদিন বহুচর্চিত দেউচা এলাকার আদিবাসীদের সঙ্গে কথা বলেন নওশাদ সিদ্দিকী। তিনি শিল্পের স্বার্থে আদিবাসীদের স্বার্থ বিঘ্নিত করা হচ্ছে বলে অভিযোগ তুলেছেন। তিনি সরকারকে কটাক্ষ করে বলেন, ' যদি মানুষের জন্য শিল্প করেন তাহলে কেন এত চাপে রাখা হচ্ছে এখানকার মানুষজনকে? আমরা উন্নয়ন চায়, তবে কখনোই চাইনা আদিবাসী প্রান্তিক মানুষদের সর্বহারা করে দিয়ে পুঁজিপতিদের সুবিধা করে দেওয়া হোক।'

বন্ধ করুন