বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > লাটে উঠল যাবতীয় বিধি, ডাবচোর সন্দেহে বর্ধমানে 'গণপিটুনি', ছবিও তুলল আমজনতা
গণপিটুনির অভিযোগ (প্রতীকী ছবি)
গণপিটুনির অভিযোগ (প্রতীকী ছবি)

লাটে উঠল যাবতীয় বিধি, ডাবচোর সন্দেহে বর্ধমানে 'গণপিটুনি', ছবিও তুলল আমজনতা

  • একেবারে দল বেঁধে জড়ো হয়ে ওই যুবককে মারধর করা হয়েছে বলে অভিযোগ

কার্যত লকডাউন। রাস্তাঘাট ফাঁকা। লোকজন বিশেষ বের হচ্ছেন না। দূরত্ব বিধি বজায় রাখার জন্য আবেদন করা হচ্ছে বিভিন্ন মহল থেকে। করোনা রুখতে একেবারে কড়া বিধি আরোপ করা হয়েছে। কিন্তু যাবতীয় বিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে একেবারে দল বেঁধে চোর সন্দেহে এক যুবককে পেটাল আমজনতা। বর্ধমানের ঘোড়দৌড়চটি এলাকার ঘটনা। 

স্থানীয় সূত্রে খবর, একটি মূক ও বধির স্কুলের সামনে টোটো দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে এদিন সন্দেহ হয় এলাকাবাসীর। এরপর গিয়ে দেখেন ভেতরে ডাব পাড়ছে এক যুবক। এরপর তাকে গাছ থেকে নামিয়ে বেধড়ক মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। এমনকী ল্যাম্পপোস্টে বেঁধেও মারধর করা হয় তাকে। অভিযোগ এমনটাই। গণপিটুনি বিরোধী আইন, ও করোনা সতর্কতা বিধি সব কিছুকেই বুড়ো আঙুল দেখিয়ে গণপিটুনি চলে বলে অভিযোগ। এরপর সেই জখম যুবককে উদ্ধার করা তো দূর অস্ত, তার ছবি তোলার জন্য ব্যস্ত হয়ে পড়ে অনেকেই। তবে ওই যুবকের দাবি চুরির জন্য নয়, তেষ্টা মেটানোর জন্য সে দুটি ডাব পাড়তে গিয়েছিল। তবে বাসিন্দাদের দাবি, সম্প্রতি ওই স্কুলেরই রান্নাঘরে চুরি হয়েছে। সেদিনও রাস্তায় এরকমই একটি টোটো দাঁড়িয়ে ছিল। ওই যুবকটি চুররি ঘটনায় সন্দেহভাজন দুজনের নাম বলেছে। কিন্তু সে এই নামগুলো জানল কী করে? তবে পুলিশ পরে ওই জখম যুবককে উদ্ধার করেছে ও গোটা ঘটনা খতিয়ে দেখছে।

বন্ধ করুন