বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > ফের দলের বিরুদ্ধেই প্রতারণাচক্র চালানোর অভিযোগে সরব মহুয়া, নিশানায় কে?
কৃষ্ণনগরের তৃণমূল সাংসদ মহুয়া মৈত্র। ফাইল ছবি

ফের দলের বিরুদ্ধেই প্রতারণাচক্র চালানোর অভিযোগে সরব মহুয়া, নিশানায় কে?

  • নদিয়ার পলাশিপাড়ায় প্রাথমিক শিক্ষকের চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণাচক্র চলছে বলে অভিযোগ উঠেছে শাসকদলের নেতাদের একাংশের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, প্রতারকরা সাধারণ মানুষকে বলছে, আদালতের নির্দেশে তৈরি হবে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের নতুন প্যানেল।

ফের নদিয়ায় চাকরি দেওয়ার নাম করে প্রতারণাচক্র চালানোর অভিযোগ। আর তাতে সাধারণ মানুষের পাশে থাকার আশ্বাস দিলেন সাংসদ মহুয়া মৈত্র। জনগণকে তাঁর পরামর্শ, কেউ টাকা চাইলে আমাকে বলুন।

নদিয়ার পলাশিপাড়ায় প্রাথমিক শিক্ষকের চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণাচক্র চলছে বলে অভিযোগ উঠেছে শাসকদলের নেতাদের একাংশের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, প্রতারকরা সাধারণ মানুষকে বলছে, আদালতের নির্দেশে তৈরি হবে প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের নতুন প্যানেল। মোটা টাকা ঘুষ দিলেই সেই প্যানেলে তোলা যাবে নাম। এই প্রতিশ্রুতিতে বহু যুবক জমি - বাড়ি বিক্রি করে টাকা তুলে দিচ্ছেন প্রতারকদের হাতে।

এই খবর কানে যেতে মহুয়া মৈত্র বলেন, ‘এলাকাবাসীকে আমি সতর্ক করেছি। বলেছি কোনও প্রতারকের খপ্পরে পড়লে আমার সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেন। দুর্নীতির সঙ্গে কোনও আপস করব না।’

গত ২৮ এপ্রিল সোশ্যাল মিডিয়ায় এক পোস্ট করে দুর্নীতির বিরুদ্ধে কার্যত বিদ্রোহ ঘোষণা করেন মহুয়া। তিনি লেখেন, ‘মাননীয়া মুখ্যমন্ত্রী বার বার বলছেন, দলকে সামনে রেখে কোনও রকমের তোলাবাজি করা যাবে না - চাকরি দেওয়ার নাম করে, TET প্যানেলে নথিভুক্ত করার নাম করে, সরকারি কাজ করিয়ে দেওয়ার নাম করে কেউ বা কারা যদি মানুষকে প্রতারণা করে তবে নির্ভয়ে এক্ষুনি পুলিশ বা আমার অফিসে লিখিত অভিযোগ করুন। ভয় পাবেন না। চোর, প্রতারককে ভয় করার কোনও কারণ নেই। যতই প্রভাবশালী হোক না কেন এক দিন না একদিন ধরা পড়বেই - তাই দয়া করে এগিয়ে আসুন - চলুন এই চক্রগুলিকে বন্ধ করি। ’ এর পরই শুক্রবার রাতে চাকরি দেওয়াক নামে প্রতারণার অভিযোগে গ্রেফতার হন তেহট্টের বিধায়ক তাপস সাহার আপ্তসহায়ক প্রবীর কয়াল।

 

বন্ধ করুন