বাড়ি > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > মোবাইল ফোন খারাপ করে দেওয়ার অভিযোগ, প্রতিবেশীর মারে নিহত যুবক
প্রতীকি ছবি
প্রতীকি ছবি

মোবাইল ফোন খারাপ করে দেওয়ার অভিযোগ, প্রতিবেশীর মারে নিহত যুবক

  • ফোন খারাপ করে দিয়েছে এই অভিযোগে ব্যাপক মারধর করা হয় আলিমুলকে। লাঠি ও রড দিয়ে পেটানো হয় বলে অভিযোগ।

খেলতে খেলতে শিশুরা মোবাইল ফোন খারাপ করে ফেলায় প্রতিবেশীর মারে মৃত্যু হল এক ব্যক্তির। নিহতের নাম আলিমুল শেখ। ঘটনাটি মালদার কালিয়াচক থানা এলাকার।

নিহতের পরিজনদের অভিযোগ, প্রতিবেশী মোল্লা বক্কাসের নাতির সঙ্গে মোবাইল ফোনটি নিয়ে খেলছিল আলিমুল শেখের ছেলে। ফোনটি ছিল মোল্লা বক্কাসের। এরই মধ্যে ফোনটি হারিয়ে যায়। ফোন ছাড়াই বাড়ি ফিরে যায় শিশুটি।

এর পর প্রতিবেশীর বাড়িতে হানা দেয় মোল্লা বক্কাস। শুরু হয় গন্ডগোল। তাদের অভিযোগ আলিমুল ফোনটি চুরি করেছে। কিছুক্ষণ পর যেখানে শিশুদুটি যেখানে খেলছিল সেখানেই উদ্ধার হয় ফোনটি। স্থানীয়দের হস্তক্ষেপে ঝঞ্ঝাটও তখনকার মতো মেটে।

কিন্তু এর পর মোবাইল ফোনটি আর চালু করা যায়নি। এই অভিযোগে ছেলে মেয়েদের নিয়ে রাতে ফের আলিমুলের বাড়িতে হানা দেয় মোল্লা বক্কাস। ফোন খারাপ করে দিয়েছে এই অভিযোগে ব্যাপক মারধর করা হয় আলিমুলকে। লাঠি ও রড দিয়ে পেটানো হয় বলে অভিযোগ।

চিত্কার শুনে সেখানে হাজির হন আলিমুলের দাদা মহম্মদ ওয়াহাব। তিনি জানিয়েছেন, ততক্ষণে আলিমুলের দেহ ভেসে যাচ্ছে রক্তে। মালদা মেডিক্যাল কলেজে নিয়ে গেলে তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিত্সকরা।

ঘটনায় কালিয়াচক থানায় মোল্লা বক্কাস-সহ ৫ জনের বিরুদ্ধে খুনের অভিযোগ দায়ের করেছে আলিমুলের পরিবার। মালদার পুলিশ সুপার অলোক রাজোরিয়া জানিয়েছেন, ৫ জনের বিরুদ্ধে খুনের মামলা শুরু করা হয়েছে। অভিযুক্তরা সবাই পলাতক।


বন্ধ করুন