বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > নদিয়ায় পুলিশ হেফাজতে ব্যক্তির মৃত্যু, নির্যাতনের অভিযোগ পরিবারের
প্রতীকি ছবি।

নদিয়ায় পুলিশ হেফাজতে ব্যক্তির মৃত্যু, নির্যাতনের অভিযোগ পরিবারের

  • পুলিশের দাবি, গভীর রাতে থানায় অসুস্থ হয়ে পড়েন আবদুল গনি। তাঁকে শক্তিনগর জেলা হাসপাতালে নিয়ে গেলে মৃত ঘোষণা করা হয়।

ফের পুলিশ হেফাজতে মৃত্যুর অভিযোগ উঠল রাজ্যে। ঘটনা নদিয়ার ভীমপুর থানার। নিহত আবদুল গনি শেখ (৪৫) পেশায় প্রবাসী শ্রমিক। সম্প্রতি বাড়ি ফিরেছিলেন তিনি। শনিবার তাঁকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে যায় পুলিশ। রাতে পুলিশ হেফাজতে মৃত্যু হয় তাঁর। প্রৌঢ়ের মৃত্যুর তদন্ত দাবি করেছে পরিবার।

মৃতের পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, হরিয়ানায় প্রবাসী শ্রমিক হিসাবে কাজ করেন আবদুল গনি। সম্প্রতি কালীগঞ্জ থানা এলাকায় বাড়ি ফেরেন তিনি। শনিবার বাড়িতে পুলিশ আসে। কোনও একটি মামলার কথা বলে তাঁকে আটক করে নিয়ে যায়। রাতে ফোনে জানানো হয় রাতে মৃত্যু হয়েছে তাঁর।

পুলিশের দাবি, গভীর রাতে থানায় অসুস্থ হয়ে পড়েন আবদুল গনি। তাঁকে শক্তিনগর জেলা হাসপাতালে নিয়ে গেলে মৃত ঘোষণা করা হয়।

পরিবারের দাবি, পুলিশ যখন আটক করে নিয়ে গিয়েছিল তখন সম্পূর্ণ সুস্থ ছিলেন ওই ব্যক্তি। তাঁর কোনও পুরনো রোগ ছিল না। থানায় এমন কী হল যে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে মৃত্যু হল তাঁর? অভিযোগ, ভীমপুর থানার পুলিশ পিটিয়ে মেরেছে আবদুল গনিকে। এব্যাপারে নদিয়া জেলা পুলিশের তরফে কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি।

 

বন্ধ করুন