বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > নদীতে ২ দিন ধরে ভাসছিল ‘লাশ’, কাছে যেতেই চোখ মেলে তাকাল সে
অজানা ওই ব্যক্তিকে উদ্ধার করে নিয়ে যাচ্ছেন গ্রামবাসীরা।
অজানা ওই ব্যক্তিকে উদ্ধার করে নিয়ে যাচ্ছেন গ্রামবাসীরা।

নদীতে ২ দিন ধরে ভাসছিল ‘লাশ’, কাছে যেতেই চোখ মেলে তাকাল সে

  • পুলিশ আসার আগেই ওই ব্যক্তিকে উদ্ধার করেন স্থানীয়রা। তাঁর খাবারের ব্যবস্থা করেন। এর পর পুলিশকর্মীরা পৌঁছে তাঁকে নিয়ে যান। তাঁর চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

২ দিন নদীতে পাঁকের মধ্যে আটকে থাকার পর এক ব্যক্তিকে উদ্ধার করলেন স্থানীরা। বৃহস্পতিবার সকালে এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়ায় পশ্চিম মেদিনীপুরের দাসপুরের গুড়লি গ্রামের ঘোষপাড়ায়। প্রাথমিক অনুমান ওই ব্যক্তি ভিনরাজ্যের বাসিন্দা ও মানসিকভারসাম্যহীন। পরে পুলিশ তাঁর চিকিৎসার ব্যবস্থা করে।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, বুধবার থেকে ঘাটাল – দাসপুর সীমান্তে গুড়লি গ্রামে কাঁসাই নদীতে এক ব্যক্তিকে ভাসতে দেখেন স্থানীয়রা। একটি নির্জন জায়গায় গলা পর্যন্ত ডুবে ছিল ওই ব্যক্তির। সোমবার সকালেও তাঁকে সেখানে দেখে মৃত বলে মনে করেন স্থানীয়রা। নৌকা নিয়ে দেখতে যান তাঁকে। গিয়ে দেখেন ব্যক্তি জীবিত। এর পর খবর দেওয়া হয় পুলিশে।

পুলিশ আসার আগেই ওই ব্যক্তিকে উদ্ধার করেন স্থানীয়রা। তাঁর খাবারের ব্যবস্থা করেন। এর পর পুলিশকর্মীরা পৌঁছে তাঁকে নিয়ে যান। তাঁর চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

প্রাথমিকভাবে মনে করা হচ্ছে ওই ব্যক্তি ভিনরাজ্যের বাসিন্দা। স্থানীয়দের কোনও প্রশ্নের জবাব দেননি তিনি। কী ভাবে তিনি সেখানে পৌঁছলেন। তাঁকে কি কেউ সেখানে ফেলে রেখে গিয়েছে তা জানার চেষ্টা করছে পুলিশ।

ঘটনাকে কেন্দ্র করে সকালে গুড়লি গ্রামে চাঞ্চল্য ছড়ায়। একমুখ দাঁড়িওয়ালা ব্যক্তিকে দেখতে কাঁসাই নদীর পাড়ে ভিড় করেন স্থানীয়রা। তাঁদের দাবি, সম্ভবত নদীর পাঁকে আটকা পড়ে গিয়েছিলেন ওই ব্যক্তি। 

 

বন্ধ করুন