বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Maoist Poster: পুরুলিয়ার বিডিও–কে খুনের হুমকি, মাওবাদী পোস্টারে ব্যাপক আলোড়ন
মাওবাদী পোস্টার দেখা দিয়েছে।

Maoist Poster: পুরুলিয়ার বিডিও–কে খুনের হুমকি, মাওবাদী পোস্টারে ব্যাপক আলোড়ন

  • আজ, শুক্রবার পুরুলিয়ার মানবাজার–বরাবাজার এবং মানবাজার–বান্দোয়ান রাজ্য সড়কের গায়েই থাকা গাছগুলিতে একাধিক পোস্টার দেখতে পাওয়া যায়। সেই একই ফরম্যাট—সাদা কাগজে লাল কালি দিয়ে লেখা। পোস্টারের বয়ান অনুযায়ী, সেখানে একটি লজ বন্ধ করার নির্দেশ ছিল মাওবাদীদের পক্ষ থেকে।

আজ, শুক্রবার সকালে মাওবাদী পোস্টার দেখা দিয়েছে। সেখানে মানবাজার ১ নম্বর ব্লকের বিডিওকে খুনের হুমকি দেওয়া হযেছে। এমন পোস্টার প্রকাশ্যে আসায় শোরগোল পড়ে গিয়েছে গোটা পুরুলিয়ায়। হঠাৎ কেন এমন পোস্টার দিল মাওবাদীরা?‌ উঠেছে প্রশ্ন। এই পোস্টারগুলি আদৌ মাওবাদীদের সাঁটানো কি না, তা নিয়ে সন্দেহ প্রকাশ করছেন অনেকে।

ঠিক কী ঘটেছে পুরুলিয়ায়?‌ স্থানীয় সূত্রে খবর, আজ, শুক্রবার পুরুলিয়ার মানবাজার–বরাবাজার এবং মানবাজার–বান্দোয়ান রাজ্য সড়কের গায়েই থাকা গাছগুলিতে একাধিক পোস্টার দেখতে পাওয়া যায়। সেই একই ফরম্যাট—সাদা কাগজে লাল কালি দিয়ে লেখা। পোস্টারের বয়ান অনুযায়ী, সেখানে একটি লজ বন্ধ করার নির্দেশ ছিল মাওবাদীদের পক্ষ থেকে। বিডিও সেই লজটি খুলেছেন বলেই এই পোস্টার পড়েছে। যা নিয়ে আলোড়ন পড়েছে।

লজের বিষয়টি ঠিক কী?‌ সূত্রের খবর, এখানে একটি লজ রয়েছে। যা বন্ধ। সেটি আবার খুলে দিয়েছেন বিডিও মোনাজকুমার পাহাড়ি। তাই সেটা যদি বন্ধ করা না হয় তাহলে তাঁকে খুন করা হবে বলে হুমকি পোস্টার দিয়েছে মাওবাদীরা। পোস্টারের নীচে লেখা ‘মাওবাদী’। যদিও উদ্ধার হওয়া পোস্টারে বাক্য গঠন থেকে শুরু করে বানান ভুল লক্ষ্য করা গিয়েছে। যা নিয়ে সন্দেহ দেখা দিয়েছে।

ঠিক কী বলছেন বিডিও?‌ এই মাওবাদী পোস্টার নিয়ে বিডিও মোনাজকুমার পাহাড়ি সংবাদমাধ্যমকে বলেন, ‘‌আমি এই নিয়ে কিছু বলব না। পুলিশ তদন্ত করছে।’‌ আর পুরুলিয়ার পুলিশ সুপার এস সেলভামুরুগন বলেন, ‘‌কিছু মানুষ ব্যক্তিগত আক্রোশে এই কাজ করেছে। এখানে কোনও মাওবাদী নেই। তবুও বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’‌

বন্ধ করুন