বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > কেতুগ্রামে কাকভোরে প্রবল বিস্ফোরণ, ভূমিকম্প ভেবে বাড়ি ছেড়ে বেরিয়ে এল মানুষ
বিস্ফোরণের অভিঘাতে ফাটল ধরেছে দেওয়ালে। 
বিস্ফোরণের অভিঘাতে ফাটল ধরেছে দেওয়ালে। 

কেতুগ্রামে কাকভোরে প্রবল বিস্ফোরণ, ভূমিকম্প ভেবে বাড়ি ছেড়ে বেরিয়ে এল মানুষ

  • পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছেন, বিস্ফোরণে আহত হয়েছেন সাক্ষীগোপাল, তাঁর ছেলে শুভজিৎ ও পরিবারের আরও ১ সদস্য। বিস্ফোরণের পরেই বাড়ি থেকে পালান তাঁরা।

পূর্ব বর্ধমানের কেতুগ্রামে বাড়িতে মজুত বোমা ফেটে উড়ে গেল কংক্রিটের চাল, ভেঙে পড়ল কংক্রিটের পিলার। বৃহস্পতিবার ভয়াবহ এই বিস্ফোরণ ঘটে কেতুগ্রামের সুজাপুর গ্রামে সাক্ষীগোপাল ঘোষের বাড়িতে। ঘটনাস্থলে পৌঁছে তদন্ত শুরু করেছে কেতুগ্রাম থানার পুলিশ। ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত সাক্ষীগোপালসহ পরিবারের ৩ সদস্য।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, বৃহস্পতিবার ভোর ৫টা নাগাদ বিকট শব্দে বিস্ফোরণ হয়। বিস্ফোরণের তীব্রতায় কেঁপে ওঠে আসেপাশের মাটি। অনেকে ভাবেন ভূমিকম্প হয়েছে বুঝি। ঘর থেকে বেরিয়ে এসে দেখেন, সাক্ষীগোপাল ঘোষের বাড়ির দেওয়াল ভেঙে পড়েছে, উড়ে গিয়েছে কংক্রিটের ছাদ ও পিলার। বেঁকে গিয়েছে জানলার গ্রিলগুলি। কিন্তু সাক্ষীগোপালের কোনও খোঁজ মেলেনি।

পরিবারের সদস্যরা জানিয়েছেন, বিস্ফোরণে আহত হয়েছেন সাক্ষীগোপাল, তাঁর ছেলে শুভজিৎ ও পরিবারের আরও ১ সদস্য। বিস্ফোরণের পরেই বাড়ি থেকে পালান তাঁরা।

সকালে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় পুলিশ। প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, একটি ঘরে ঢালাই করা বাংকের ওপর মজুত ছিল প্রচুর বোমা। বোমায় কী ধরণের মশলা ব্যবহার করা হয়েছিল তা জানতে ফরেন্সিক তদন্ত করাবে জেলা পুলিশ।

ঘটনা নিয়ে শুরু হয়েছে রাজনীতি। বিজেপির দাবি, সাক্ষীগোপালের ভাইপো স্থানীয় পঞ্চায়েতের তৃণমূল সদস্য। তৃণমূলের দাবি, গত বিধানসভা নির্বাচনে বিজেপির হয়ে কাজ করেছেন শুভজিৎ। 

 

বন্ধ করুন