HT বাংলা থেকে সেরা খবর পড়ার জন্য ‘অনুমতি’ বিকল্প বেছে নিন
বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > বিধ্বংসী আগুনের কবলে বর্ধমানের ভোজ্য তেলের কারখানা, লেলিহান শিখায় আতঙ্ক
ভোজ্য তেলের কারখানায় বিধ্বংসী আগুন লাগে।

বিধ্বংসী আগুনের কবলে বর্ধমানের ভোজ্য তেলের কারখানা, লেলিহান শিখায় আতঙ্ক

  • এই অগ্নিকাণ্ডের তদন্ত করে দেখছে দমকল। প্রকৃত কী কারণে আগুন লাগল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। দমকলের পক্ষ থেকে বিস্তারিত কিছু জানানো হয়নি। আগুন সম্পূর্ণ না নেভা পর্যন্ত কারণ জানা সম্ভব নয় বলে জানানো হয়েছে। এমনকী ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণও জানানো সম্ভব নয়। এত রাতে আগুন লাগা নিয়ে সন্দেহ করছে দমকলের আধিকারিকরা।

মঙ্গলবার মাঝরাতে বর্ধমানের গলসিতে ভোজ্য তেলের কারখানায় বিধ্বংসী আগুন লাগে। আগুনের লেলিহান শিখা চারিদিকে ছড়িয়ে পড়ে। এই অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় তীব্র চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়েছে গলসিতে। আগুনের প্রভাব এত বেশি ছিল যে, রাত থেকে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করা হয়। দমকলের ছ’টি ইঞ্জিন আগুন নেভানোর চেষ্টা করে। তবে এখনও সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে আসেনি আগুন।

ঠিক কী ঘটেছে গলসিতে?‌ স্থানীয় সূত্রে খবর, বর্ধমানের গলসি এলাকায় জাতীয় সড়কের পাশে বড় ভোজ্য তেলের কারখানা রয়েছে। মঙ্গলবার রাত সাড়ে বারোটা নাগাদ ওই কারখানা থেকে ধোঁয়া বেরিয়ে আসতে দেখা যায়। তারপর বাড়তে থাকে ধোঁয়া। কুণ্ডুলী পাকিয়ে গোটা এলাকা তা ছড়িয়ে পড়ে। খবর দেওয়া হয় দমকলে। দমকলের সঙ্গে পুলিশও পৌঁছয় ঘটনাস্থলে।

কী করে আগুন লাগল?‌ দমকল সূত্রে খবর, প্রাথমিকভাবে যে তথ্য মিলেছে তাতে কারখানায় ধানের ভূষি মজুত করে রাখা হতো। সেখান থেকেই আগুন ধরে গিয়েছে। চেষ্টা করা হচ্ছে আগুন যেন মূল কারখানায় ছড়িয়ে পড়তে না পারে। গোটা রাতের চেষ্টায় আগুনের তীব্রতা নিয়ন্ত্রণে এলেও বুধবার সকালেও সম্পূর্ণ নেভানো সম্ভব হয়নি।

জানা গিয়েছে, এই অগ্নিকাণ্ডের তদন্ত করে দেখছে দমকল। প্রকৃত কী কারণে আগুন লাগল তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। দমকলের পক্ষ থেকে বিস্তারিত কিছু জানানো হয়নি। আগুন সম্পূর্ণ না নেভা পর্যন্ত কারণ জানা সম্ভব নয় বলে জানানো হয়েছে। এমনকী ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণও জানানো সম্ভব নয়। এত রাতে আগুন লাগা নিয়ে সন্দেহ করছে দমকলের আধিকারিকরা।