বাড়ি > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > NEP 2020: তামিলনাড়ুর পর নয়া শিক্ষানীতিতে আপত্তি বাংলার, পর্যালোচনায় তৈরি নয়া কমিটি
তামিলনাড়ুর পর নয়া শিক্ষানীতিতে আপত্তি বাংলার (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)
তামিলনাড়ুর পর নয়া শিক্ষানীতিতে আপত্তি বাংলার (ছবিটি প্রতীকী, সৌজন্য পিটিআই)

NEP 2020: তামিলনাড়ুর পর নয়া শিক্ষানীতিতে আপত্তি বাংলার, পর্যালোচনায় তৈরি নয়া কমিটি

  • সেই কমিটির রিপোর্টের ভিত্তিতেই পরবর্তী পদক্ষেপ করবে রাজ্য।

জাতীয় শিক্ষানীতির বিরুদ্ধে প্রথম মুখ খুলেছিল তামিলনাড়ু। তার কিছুক্ষণ পরই সেই শিক্ষানীতি নিয়ে আপত্তি জানাল পশ্চিমবঙ্গ। নয়া শিক্ষানীতির পর্যালোচনার জন্য ছয় সদস্যের একটি কমিটিও গঠন করা হল।

সোমবার বেহালায় রাখিবন্ধন অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় জানান, নয়া শিক্ষানীতি নিয়ে রাজ্যের একাধিক আপত্তি আছে। তা কেন্দ্রকে জানানোও হয়েছিল। কিন্তু রাজ্যের সঙ্গে কোনও আলোচনা না করেই কেন্দ্র একতরফা সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী। 

একইসঙ্গে তিনি জানান, নয়া শিক্ষানীতির আগে ব্যাপক প্রস্তুতির প্রয়োজন হয়। হঠাৎ করে তা শুরু করা যায় না। পাঁচ বছরের মধ্যে কোনওভাবেই নয়া শিক্ষানীতি চালু করা সম্ভব নয় বলে জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ‘কোনও নিয়ম-নীতি পালটানো হল না! আলোচনা করা হল না। নয়া শিক্ষানীতি চালুর জন্য পরিকাঠামো খাতে যে খরচ হবে, তা বহন করবে কারা? দুম করে এভাবে জাতীয় শিক্ষানীতি শুরু করা যায় না।’ মাধ্যমিক পরীক্ষার ‘গুরুত্ব’ কমানো নিয়েও আপত্তি জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী। 

পরে তিনি জানান, নয়া শিক্ষানীতি পর্যালোচনার জন্য একটি কমিটি তৈরি করা হয়েছে। তাতে রয়েছেন - পবিত্র সরকার, নৃসিংহপ্রসাদ ভাদুড়ি, সুরঞ্জন দাস, অভীক মজুমদার, সব্যসাচী বসু রায়চৌধুরী এবং সৌগত রায়। শিক্ষানীতি নিয়ে রাজ্যের বিভিন্ন শিক্ষক সংগঠনগুলির মতামত নেবেন তাঁরা। আগামী ১৫ অগস্টের মধ্যে মতামত নিয়ে রাজ্য সরকারকে রিপোর্ট জমা দেবে কমিটি। তা কেন্দ্রের কাছে পাঠানো হবে এবং সেই রিপোর্টের ভিত্তিতেই পরবর্তী পদক্ষেপ করবে রাজ্য।

বন্ধ করুন