বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > মামির সঙ্গে ঝগড়া, কলের হ্যান্ডেল দিয়ে মত্ত মামাকে মেরে ফেললেন যুবক
 আত্মঘাতী প্রতীকী ছবি (HT_PRINT)
 আত্মঘাতী প্রতীকী ছবি (HT_PRINT)

মামির সঙ্গে ঝগড়া, কলের হ্যান্ডেল দিয়ে মত্ত মামাকে মেরে ফেললেন যুবক

গত রবিবার সন্ধ্যায় মদ্যপ অবস্থায় বাড়িতে ফেরেন মামা অরবিন্দ মাঝি। এরপরই মত্ত অবস্থাতেই মামীর সঙ্গে ঝগড়া বেধে যায়।

‌মামিকে বাঁচাতে গিয়ে মত্ত মামাকে খুন করে বসলেন ভাগ্নে। ঘটনাটি ঘটেছে কাটোয়ার দেয়াসিন গ্রামে। ইতিমধ্যে পুলিশ অভিযুক্ত ভাগ্নেকে গ্রেফতার করেছে। মামা ও ভাগ্নের মধ্যে পারিবারিক বিবাদ ছিল বলেও পুলিশের কাছে খবর রয়েছে। তবে এই খুনের পিছনে ঠিক কী কারণ লুকিয়ে আছে, তা তদন্ত করে দেখছে পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে খবর, গত রবিবার সন্ধ্যায় মদ্যপ অবস্থায় বাড়িতে ফেরেন অরবিন্দ মাঝি। এরপরই মত্ত অবস্থাতেই স্ত্রী'র সঙ্গে ঝগড়া বেঁধে যায়। দু'জনের সেই ঝগড়া আটকানোর চেষ্টা করেন ভাগ্নে। কিন্তু তাতে কিছু লাভ হয়নি। এরপরই অরিন্দমের সঙ্গে তাঁর ভাগ্নের বচসা শুরু হয়ে যায়। সেই বচসা শেষ পর্যন্ত হাতাহাতিতে গড়ায়। তখনই লোহার কলের হ্যান্ডেল দিয়ে মামার মাথায় সজোরে মারেন ভাগ্নে। এতেই রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে লুটিয়ে পড়েন তিনি। এরপর তাঁকে গুরুতর জখম অবস্থায় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।

ইতিমধ্যে প্রতিবেশীদের তরফে জানানো হয়েছে, জায়গা নিয়ে মামা ও ভাগ্নের মধ্যে ঝামেলা অনেক দিন থেকেই চলছিল। রবিবার সেটা মাথাচাড়া দিয়ে ওঠে। রাগের বশেই এই ধরনের কাণ্ড রাহুল ঘটিয়ে ফেলেছে বলে প্রতিবেশীদের অনুমান। গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে কথা বলছেন পুলিশ আধিকারিকরা। এই ঘটনা ঘটানোর পিছনে অন্য কোনও কারণ লুকিয়ে আছে কিনা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

বন্ধ করুন